চট্টগ্রাম, শনিবার, ১৩ জুলাই ২০২৪ , ২৯শে আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

সকালে ঘুম থেকে উঠে খালি পেটে পানি পান আসলেই কী স্বাস্থ্যকর?

প্রকাশ: ৮ মার্চ, ২০২৪ ৪:১০ : অপরাহ্ণ

 

খালি পেটে পানি খাওয়া স্বাস্থ্যকর বলেই এতদিন শুনে এসেছেন। সেই নিয়ম মেনেই সকালে উঠে মুখ ধুয়ে খালি পেটে বেশি পরিমাণে পানি খেয়ে নেন অনেকে। তবে পুষ্টিবিদেরা বলছেন, সকালে ঘুম থেকে উঠেই পানি খাওয়ার এই অভ্যাস বিপাকহারের জন্য খারাপ। তবে আয়ুর্বেদ বলছে, স্বাভাবিত তাপমাত্রায় থাকা পানি না খেয়ে বরং উষ্ণ পানি খাওয়া যেতে পারে। ভারতীয় সংবাদমাধ্যম আনন্দবাজারের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

সেই প্রতিবেদনে জানানো হয়, প্রসঙ্গে পুষ্টিবিদ দীক্ষা ভাস্বর সাভালিয়া বলেন, সকালে ঘুম থেকে ওঠার পরেই ১ লিটারের বেশি পানি খাওয়ার মানে দেহযন্ত্রটি পুরোপুরি চালু হওয়ার আগেই তার মধ্যে একবালতি পানি ঢেলে দেয়া। এই অভ্যাসেই আসলে শরীরের ক্ষতি হয়। মেটাবলিক রেট অর্থাৎ ঘুম থেকে ওঠার পর বিপাকহারের মাত্রা একটু একটু করে বাড়াতে হয়। যার উপর নির্ভর করে সারা দিনের পরিপাক ক্রিয়া।

তিনি বলেন, সকালে অতিরিক্ত জল শুধু এই ক্রিয়াকে ব্যাহত করে না, লিভার, কিডনি এবং মস্তিষ্কের উপরেও চাপ ফেলে। যা শরীরের মূল স্নায়ুতন্ত্রটিকেও বিপদে ফেলতে পারে। তাই সকালে খুব বেশি নয়, এক থেকে দুই গ্লাস উষ্ণ পানি খেয়ে দিন শুরু করা যেতেই পারে।

পরিমাণের পাশাপাশি দীক্ষা জোর দিয়েছেন পানি খাওয়ার ধরনের উপর। অর্থাৎ কীভাবে পানি খাচ্ছেন সেই বিষয়টিও যথেষ্ট গুরুত্বপূর্ণ। দীক্ষার মতে, তৃষ্ণায় গলা শুকিয়ে গেলেও তাড়াহুড়োর সময়ে চেষ্টা করুন বসে পানি খেতে। কারণ দাঁড়িয়ে দাঁড়িয়ে পানি খেলে তা কিডনির ক্ষতি করে। অনেকের মতে অস্থিসন্ধির ব্যথা, যন্ত্রণাও বেড়ে যায় এই অভ্যাসে।

এ ছাড়া, দাঁড়িয়ে পানি খেলে পাকস্থলির উপরেও চাপ পড়ে। তাই হজমে সমস্যা হতে পারে। উষ্ণ পানি না খেলেও স্বাভাবিক তাপমাত্রার পানি সকালে খাওয়া যেতেই পারে। কিন্তু ফ্রিজে রাখা ঠান্ডা জল বা তরল পানীয় একেবারেই নয়।

 

Print Friendly and PDF