চট্টগ্রাম, মঙ্গলবার, ২৭ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ , ১৪ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

হাতের মেহেদি পুরোনো হয়নি, অথচ সব শেষ

প্রকাশ: ৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ ১১:২৭ : পূর্বাহ্ণ

 

 

দুদিন আগেই আকদ হয়েছে। আকদ ঘিরে দুই পরিবারে এখনো খুশির আমেজ। সেই উৎসবে হঠাৎ নেমে এল নিস্তব্ধতা। সড়ক দুর্ঘটনায় প্রাণ হারিয়েছেন রায়হান নওশাদ। গতকাল রোববার সন্ধ্যায় নগরীর আউটার রিং রোডে মোটরসাইকেল দুর্ঘটনা কেড়ে নিয়েছে এই তরুণের প্রাণ। রায়হান হাটহাজারী উপজেলার পাটোয়া গ্রামের হাজি নাজির ফকির বাড়ির মৃত নাজিম উদ্দিনের ছেলে। আজ সোমবার সকাল ১১টায় গ্রামের বাড়িতে তার দাফন হয়েছে।

 

 

পুলিশ ও নিহতের পারিবারিক সূত্র জানায়, রায়হান নগরীর কাটগড় এলাকার এসএপিএল কন্টেনার ডিপোতে চাকরি করতেন। আরেক সহকর্মীকে নিয়ে কর্মস্থল থেকে ফেরার পথে দুর্ঘটনায় পড়েন। ঘটনাস্থলেই মারা যান তিনি। অন্যজনও গুরুতর আহত হয়েছেন।

রায়হান নওশাতের মৃত্যুর বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ নুরুল আলম আশিক। তিনি বলেন, গুরুতর আহত অবস্থায় হাসপাতালের জরুরি বিভাগে আনা হলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন।

 

 

রায়হান নওশাদ পোর্ট সিটি ইন্টারন্যাশনাল ইউনিভার্সিটির সাংবাদিকতা ও গণমাধ্যম অধ্যয়ন বিভাগের প্রথম ব্যাচের ছাত্র ছিলেন।গত শুক্রবার (২ ফেব্রুয়ারি) সানজিদা সূচি নামের এক তরুণীর সঙ্গে তার আকদ হয়। আকদ অনুষ্ঠান শেষে সবার সঙ্গে হাসিমুখে ছবিও তোলেন রায়হান। সেই হাসিমুখ এত দ্রুত মুছে যাবে! মানতে পারছেন না কেউ। এমন মৃত্যুর খবর পেয়ে সহপাঠী আর শিক্ষকদের মধ্যে শোকের ছায়া নেমে আসে। তাদের অনেকেই রায়হানকে নিয়ে ফেসবুকে স্মৃতিচারণ করেছেন।

এদিকে রায়হানের স্ত্রী সানজিদা সূচির আহাজারিতে ভারী হয়ে ওঠে চট্টগ্রাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আকাশ–বাতাস। এ সময় কাঁদতে কাঁদতে তিনি বলছিলেন, আমার হাতে এখনো মেহেদি লাগানো হয়নি। আমার জামাই কই?

 

 

নওশাদের অকাল মৃত্যুতে তার বন্ধুমহলে নেমে এসেছে শোকের ছায়া। রেজওয়ান ইসলাম নামে একজন লিখেছেন, পরশু দিন (শুক্রবার) ভাইয়ের আকদ হলো। আজ আমি এটা কি শুনলাম? কোনো ট্যুরের কথা বললেই বাইক নিয়ে যাবেন বলে জানাতেন। এই প্রিয় বাইকটা ভাইয়ের প্রাণটাই নিয়ে গেল। রুকন উদ্দীন নামের আরেকজন লিখেন, অনিশ্চিত জীবন।সেকেন্ডের বিশ্বাস নেই। দুদিন আগেই আকদ হলো রায়হান ভাইয়ের,আজ বাইক এক্সিডেন্টে দুনিয়ার সফর শেষ করলেন। নানা ব্যস্ততায় বহুদিন ফেইসবুক থেকে দূরে ছিলেন রায়হান। এই বছরের শুরুতে পুনরায় ফিরে আসেন ফেইসবুকে। সেই কথা তুলে ধরে একরামুল হক শামিম নামে আরেকজন লিখলেন, ভাই ফেইসবুকে যেভাবে ফিরে এসেছিলেন, সেভাবে আবার পৃথিবীতে ফিরে আসা যায় না!

 

 

Print Friendly and PDF