চট্টগ্রাম, সোমবার, ২৬ ফেব্রুয়ারি ২০২৪ , ১৩ই ফাল্গুন, ১৪৩০ বঙ্গাব্দ

চাকরি ছাড়াও আরব আমিরাতের গোল্ডেন ভিসা মিলবে যেভাবে

প্রকাশ: ২৯ জানুয়ারি, ২০২৪ ৩:২৯ : অপরাহ্ণ

 

সংযুক্ত আরব আমিরাত ২০১৯ সালে গোল্ডেন ভিসা চালু করে। বিদেশি নাগরিকদের জন্য ১০ বছর মেয়াদি এই গোল্ডেন ভিসা চালু হওয়ার পর থেকে হাজার হাজার বিনিয়োগকারী, পেশাদার, শিক্ষার্থী এবং উদ্যোক্তাদের দেওয়া হয়েছে। তবে এবার এই গোল্ডেন ভিসা পাওয়া ক্ষেত্রে নতুন সুবিধার কথা জানিয়েছে দেশটি। খবর খালিজ টাইমসের

এক্ষেত্রে চাকরি না থাকলেও আরব আমিরাতের বহু-আকাঙ্ক্ষিত এই ভিসা পাওয়া যাবে ৫টি উপায়ে। আরব আমিরাতে ১০-বছরের ভিসাধারী ব্যক্তিদের জন্য বিভিন্ন সুযোগ-সুবিধা রয়েছে। যার মধ্যে ভিসাধারী ব্যক্তির স্বামী-স্ত্রী এবং সন্তানসহ পরিবারের সদস্যদেরও আরব আমিরাতে বসবাসের অনুমতি প্রদান করা হয়।

গোল্ডেন ভিসার শুরুতে স্বাস্থ্যসেবা, মিডিয়া, আইটি এবং অন্যান্য শিল্পে কর্মরত পেশাদারদের মধ্যে যাদের মাসিক বেতন ৩০ হাজার দিরহাম বা তার বেশি তাদের এ ভিসার জন্য যোগ্য বলে ঘোষণা করা হয়। পরে গত বছরের এপ্রিলে গোল্ডেন ভিসা পাওয়ার জন্য প্রয়োজনীয় ন্যূনতম মাসিক আয় ৫০ হাজার দিরহাম থেকে কমিয়ে ৩০ হাজার দিরহাম করা হয়েছিল।

এদিকে ১০ বছরের গোল্ডেন ভিসা পেতে আরব আমিরাতে এমন কিছু ক্যাটাগরি রয়েছে যেখানে আবেদনকারীদের চাকরির প্রয়োজন নেই। ক্যাটাগরিগুলোর মধ্যে রয়েছে-

 

সম্পত্তি ক্রেতা

আরব আমিরাতের যেসব বিদেশি বিনিয়োগকারীরা এক বা একাধিক সম্পত্তি কিনেছেন যার মোট মূল্য ২০ লাখ দিরহাম বা তার বেশি তারা গোল্ডেন ভিসার জন্য আবেদন করতে পারবেন।

নগদ অর্থ জমা

কোনো ব্যক্তি যদি গোল্ডন ভিসা পেতে দুই বছরের জন্য আরব আমিরাতের স্থানীয় কোনো ব্যাংকে ২০ লাখ দিরহাম জমা করতে পারেন। তাহলে তাকে এ ভিসা পাওয়া সুযোগ দেওয়া হবে।

 

উদ্যোক্তা

গোল্ডেন ভিসা লাভের মাধ্যমে আরব আমিরাতে বসবাসের ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় নির্বাহী প্রবিধানগুলো উদ্যোক্তাদের জন্য বেশ নমনীয়। এক্ষেত্রে একজন উদ্যোক্তাকে আরব আমিরাতের ক্ষুদ্র ও মাঝারি উদ্যোগ (এসএমই) বিভাগে নিবন্ধিত কোনো একটি স্টার্টআপের মালিক বা অংশীদার হতে হবে। অবশ্য সেখানে বার্ষিক আয় ১০ লাখ দিরহামের কম হতে পারবে না।

এছাড়া যদি কোনো ব্যক্তি স্টার্টআপের প্রতিষ্ঠাতা হন বা পূর্ববর্তী কোনো উদ্যোক্তা প্রকল্পের প্রতিষ্ঠাতাদের মধ্যে একজন হন যার মোট মূল্য ৭০ লাখ দিরহামের কম নয়, তাহলে তিনি আরব আমিরাতের গোল্ডেন রেসিডেন্সের অধিকারী হবেন। তবে এই প্রকল্প অর্থ মন্ত্রণালয় বা উপযুক্ত স্থানীয় কর্তৃপক্ষের অনুমোদন প্রয়োজন হবে।

 

বিজ্ঞানী ও গবেষক

এমিরেটস সায়েন্টিস্ট কাউন্সিলের সুপারিশের ভিত্তিতে উচ্চ কৃতিত্ব ও মেধার স্বাক্ষর রাখা বিজ্ঞানী এবং গবেষকদের গোল্ডেন ভিসা রেসিডেন্সি দেওয়া হয়। এক্ষেত্রে প্রার্থীদের বিশ্বের সেরা বিশ্ববিদ্যালয় থেকে প্রকৌশল, প্রযুক্তি, জীবন বিজ্ঞান এবং প্রাকৃতিক বিজ্ঞানের বিষয়ে পিএইচডি বা স্নাতকোত্তর ডিগ্রি থাকতে হবে। এর পাশাপাশি উল্লেখযোগ্য গবেষণা-সম্পর্কিত অর্জনও থাকতে হবে তাদের।

 

মেধাবী শিক্ষার্থী

সংযুক্ত আরব আমিরাতের মাধ্যমিক বিদ্যালয়ে মেধার উচ্চ-স্বাক্ষর রাখা শিক্ষার্থী এবং আরব আমিরাতের বিশ্ববিদ্যালয় ও বিশ্বব্যাপী সেরা ১০০টি বিশ্ববিদ্যালয় থেকে অসামান্য কৃতিত্ব অর্জন করা গ্রাজুয়েটরা আমিরাতে ১০ বছরের ভিসার জন্য আবেদন করতে পারেন।

 

 

সুত্র: চ্যানেল২৪

Print Friendly and PDF