চট্টগ্রাম, বুধবার, ২২ মে ২০২৪ , ৮ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

মাদামবিবির হাট শাহ্‌জাহানীয়া সুন্নিয়া দাখিল মাদ্রাসায় জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভায় লায়ন আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইমরান

প্রকাশ: ১ সেপ্টেম্বর, ২০২৩ ২:৪৫ : অপরাহ্ণ

মাদামবিবির হাট শাহ্‌জাহানীয়া সুন্নিয়া দাখিল মাদ্রাসায় ১৫ই আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আলোচনা সভায় লায়ন আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইমরান বলেন, দেশের সত্যিকারের উন্নয়নের জন্য এই সরকার বারবার দরকার। বঙ্গবন্ধু আমাদেরকে স্বাধীন দেশ উপহার দিয়েছেন এবং তাঁর কন্যা দেশরত্ন শেখ হাসিনা দিয়েছেন- দেশের জনগণকে উন্নত অবকাঠামো এবং আত্মনির্ভরতা। উপস্থিত মাদ্রাসা ছাত্রদের উদ্দেশ্য করে তিনি বলেন, পূর্ণাঙ্গ জীবন ব্যবস্থা হিসেবে ইসলামের প্রচার ও প্রসারে বঙ্গবন্ধু এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী দেশরত্ন শেখ হাসিনা ঈর্ষনীয় কাজ করেছেন। বায়তুল মোকাররম জাতীয় মসজিদ থেকে শুরু করে প্রতিটি উপজেলায় মডেল মসজিদ নির্মাণ এবং ২৮ হাজার মসজিদ পাঠাগার স্থাপন এই ভালো কাজগুলোর সামান্য উদাহরণ।
১৫ আগস্ট জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ও তাঁর পরিবারের শহীদ সদস্যদের আত্মার মাগফেরাত কামনায় সীতাকুণ্ড উপজেলার ৯ নং ভাটিয়ারি ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ড মাদামবিবির হাট শাহজানীয়া সুন্নিয়া দাখিল মাদরাসা মিলনায়তনে আওয়ামী পরিবার থেকে উঠে আসা বিশিষ্ট রাজনীতিক লায়ন আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইমরানের উদ্যোগে ফাতেহা পাঠ, আলোচনা সভা, দোয়া মাহফিল ও মধ্যাহ্নভোজনের আয়োজন করা হয়।
আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিলে সভাপতিত্ব করেন মাদরাসা সুপার মাওলানা আহম্মদ শরীফ। বিশেষ অতিথি ছিলেন মাদরাসা পরিচালনা কমিটির সভাপতি রাশেদ হোসেন, সাধারণ সম্পাদক জানে আলম। উপস্থিত ছিলেন শাহজানীয়া সুন্নিয়া দাখিল মাদরাসা পরিচালনা কমিটির সহ-সভাপতি-১ মো: শামছুল আলম, সহ-সভাপতি-২ মো:  ইদ্রিজ মেম্বার, সহকারী সুপার মাওলানা ইউনুস রেজা, মাওলানা আনোয়ার হোসেন, হাফেজ সাইফুল ইসলাম, মাওলানা আব্দুর সালাম, মাওলানা ফারুক শাহ সহ এত্র মাদরাসার শিক্ষার্থী ও শিক্ষকবৃন্দ।
মাদরাসা অঙ্গনে জোহরের নাম আদায় করে  বঙ্গবন্ধু ও শহীদ পরিবারবর্গের রূহের মাগফিরাত এবং মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সুস্বাস্থ্য ও দীর্ঘায়ু কামনা এবং দেশবাসীর কল্যাণের উদ্দেশ্যে মাদরাসার আবাসিক-অনাবাসিক শিক্ষার্থী ও এতিম কোরআনের পাখিদের নিয়ে মধ্যাহ্নভোজের আয়োজন করা হয়। এ সময় লায়ন আলহাজ্ব মোহাম্মদ ইমরান নিজহাতে কোরআনের পাখিদের উন্নতমানের খাবার তুলে দেন।
মধ্যাহ্নভোজের শেষে  হযরত আল্লামা শাহ জাহানী (রহ:) মাজার শরিফ জেয়ারত করেন। এ সময় উপস্থিত ছিলেন মাজারের মতোয়াল্লী রাশেদ হোসেন, খাদেম গিয়াসউদ্দীন সহ মুসল্লিবৃন্দ।

Print Friendly and PDF