চট্টগ্রাম, রোববার, ১৯ মে ২০২৪ , ৫ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ঘাসফুলে ‘‘চট্টগ্রামের উন্নয়ন :নগরে বন্যা, জলাবদ্ধতা ও ভূমিধ্বস ’’ শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত

প্রকাশ: ৩১ আগস্ট, ২০২৩ ১২:২২ : অপরাহ্ণ

 

বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয় বুয়েট ’র পানি ও বন্যা ব্যবস্থাপনা ইনস্টিটিউটের শিক্ষক, গবেষক ও শিক্ষার্থীদের সমন্বয়ে ২৪ জনের একটি টিম গবেষক দলের প্রধান ড. সোনিয়া বিনতে মোর্শেদ এর নেতৃত্বে উন্নয়ন সংস্থা ঘাসফুল এর প্রধান কার্যালয়ে আজ ৩০ আগস্ট ‘‘চট্টগ্রামের উন্নয়ন : নগরে বন্যা, জলাবদ্ধতা ও ভূমিধ্বস ’’ শীর্ষক মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়।
ঘাসফুল চেয়ারম্যান ড. মনজুর-উল- আমিন চৌধুরী এর সভাপতিত্ব ও সঞ্চলানায় অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্য রাখেন ঘাসফুলের সহকারী পরিচালক সাদিয়া রহমান। ঘাসফুলের চলমান কার্যক্রম উপর ডকুমেন্টরী প্রদর্শন করা হয় ও সামাজিক উন্নয়ন
কার্যক্রমের উপর উপস্থাপনা করেন সহকারী পরিচালক কে এম জি রব্বানী বসুনিয়া।

 

 

অনুষ্ঠানে চট্টগ্রাম নগরে বন্যা, জলাবদ্ধতা ও ভূমিধ্বস বিষয়ক সমস্যা ও করণীয় সর্ম্পকে তথ্য উপাত্তভিত্তিক উপস্থাপনা প্রদান করেন চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় ভূগোল ও পরিবেশবিদ্যা বিভাগ এর সভাপতি ড. মো: আলী হায়দার। উপস্থাপিত প্রবন্ধে
তিনি চট্টগ্রামের এ বিপর্যয়কর পরিস্থিতির জন্য অব্যবস্থাপনা, সমন্বয়হীনতা, অদক্ষতা এবং দুর্নীতিকে দায়ী বলে মনে করেন।
উপস্থাপনার উপর বক্তব্য প্রদান করেন বুয়েট এর সহযোগী অধ্যাপক ড. আহমেদ ইশতিয়াক আমিন চৌধুরী, ড.শাম্মী হক এবং প্রভাষক ফারিহা ইসলাম মৌ। উন্মুক্ত আলোচনায় অংশ নেন সাংবাদিক কামরুল হাসান বাদল, বুয়েটের শিক্ষার্থী শরিফুল আলম , এইচ এম শাহরিয়ার, ফয়সাল মাহমুদ সাকিব, তাজরিন জামান।

 

বুয়েট এর পানি ও বন্যা ব্যবস্থাপনা ইনস্টটিউিট এর গবেষক দলের প্রধান ড. সোনিয়া বিনতে মোর্শেদ বলেন- হিউম্যানেটারিয়ান ইন্জিনিয়ারিং প্রোগ্রাম কোর্সের আওতায় আমরা মাঠ পর্যায়ে সরজেমিনে পর্যবেক্ষণ করে সমস্যার কারণ ও ব্যাপকতা এবং সমাধান খোঁজার চেষ্টা করবো। সে লক্ষ্যেই চট্টগ্রাম শহর এলাকা , সাতকানিয়া, বান্দরবান এলাকার আর্থসামাজিক ক্ষয়ক্ষতি মূল্যায়নের চেষ্টা করবো। এতদ উদ্যেশ্যে আমাদের চট্টগ্রামে উপস্থিতি।

 

 

সভাপতির বক্তব্যে ঘাসফুল চেয়ারম্যান ড. মনজুর-উল- আমিন চৌধুরী বলেন- চট্টগ্রাম ডুবছে, চট্টগ্রামবাসি ভুগছে,পরিত্রাণে দরকার বিজ্ঞানভিত্তিক গবেষণার মাধ্যমে সমস্যা সমাধানের বাস্তবানুগ পথ খোঁজা ও অগ্রাধিকার ভিত্তিতে সংশ্লিষ্ট সংস্থাগুলোর সমন্বতি উদ্যোগে নিরসন কার্যক্রম জোরদার করা। তিনি আশাবাদ ব্যক্ত করেন, এ ক্ষেত্রে বুয়েটের পানি ও বন্যা ব্যবস্থাপনা ইনস্টটিটিউিট এর গবেষক দলের সরজমিনে পর্যবেক্ষণমূলক এ গবেষণা সমস্যা সমাধানে ইতিবাচক ভূমিকা রাখবে।

 

Print Friendly and PDF