চট্টগ্রাম, রোববার, ২৬ মে ২০২৪ , ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

গোয়ালন্দে দু’দশক ধরে পদ্মায় ভাঙন

প্রকাশ: ১০ আগস্ট, ২০২৩ ১:০১ : অপরাহ্ণ

গত দুই দশক ধরে পদ্মা নদী ভাঙনে বিলিন হচ্ছে রাজবাড়ীর গোয়ালন্দ উপজেলার বহু গ্রাম। বাড়ি ঘর হারিয়ে ভূমিহীন হয়েছে অনেকে। এতে এই উপজেলাটির কৃষি জমিও কমেছে। ভাঙন রোধে এই দীর্ঘ সময়ে কোন উদ্যোগ গ্রহণ করেনি কর্তৃপক্ষ। ফলে প্রতিনিয়ত ছোট হচ্ছে গোয়ালন্দ উপজেলার মানচিত্র।

 

 

গোয়ালন্দ উপজেলার পদ্মা পাড়ের বাসিন্দা ৫০ বছর বয়সী ছালেহা বেগম। অন্তত ১১ বার নদী ভাঙনের শিকার হয়েছেন তিনি। বার বার ভিটেমাটি হারিয়ে অন্যের জমি ভাড়া নিয়ে বসবাসের জন্য থাকেন দৌলতদিয়া ইউনিয়নের ছাত্তার মেম্বার পাড়ায়। বার বার নদী ভাঙনের শিকার হলেও টাকার অভাবে ছাড়তে পারেননি পদ্মা পাড়। ছালেহা বেগমের এখানকার এ বাড়িটিও যে কোন সময় যেতে পারে নদী গর্ভে।

ছলেহা বেগমের মত দৌলতদিয়া ও দেবগ্রাম ইউনিয়নের ছাত্তার মেম্বার পাড়ায় বসবাসকারী অনেক পরিবারই একাধিকবার নদী ভাঙনের শিকার হয়েছেন। ভাঙন আতঙ্কে দিন কাটে দুই ইউনিয়নের ৪ হাজার পরিবারের।

 

 

তবে দীর্ঘ সময় ধরে ভাঙ্গন চলতে থাকলেও কোন উদ্যোগ নেয়নি কর্তৃপক্ষ। স্থানীয় জনপ্রতিনিধির অভিযোগ, ভাঙ্গন রোধে দ্রুত পদক্ষেপ না নিলে ইউনিয়ন দুটি বিলিন হবে পদ্মায়।

পানি উন্নয়ন বোর্ড বলছে, নদী ভাঙন রোধে গোয়লন্দ উপজেলার ঝুঁকিপূর্ণ ৬ কিলোমিটার এলাকার কাজ করার উদ্যোগ নেয়া হয়েছে।

এই প্রকল্প বাস্তবায়ন হলে ভাঙন কমবে বলেও জানান তিনি।

 

 

সূত্র – বৈশাখী  অনলাইন

Print Friendly and PDF