চট্টগ্রাম, রোববার, ১৪ এপ্রিল ২০২৪ , ১লা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

২২ হাজারেরও বেশি গৃহহীন পরিবার ঘর পাবে বুধবার

প্রকাশ: ৮ আগস্ট, ২০২৩ ১০:০২ : পূর্বাহ্ণ

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ২২ হাজার ১০১টি গৃহহীন পরিবারের মাঝে আগামী বুধবার জমিসহ ঘর হস্তান্তর করবেন। এদিন খুলনা, পাবনা ও নোয়াখালী জেলার তিনটি আশ্রয়ণ প্রকল্পে ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে তিনি এসব ঘর হস্তান্তর করবেন। বিকেলে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে সংবাদ সম্মেলনে প্রধানমন্ত্রীর মুখ্যসচিব তোফাজ্জেল হোসেন মিয়া এ কথা জানান। তিনি বলেন, আশ্রয়ণ প্রকল্পের মাধ্যমে এপর্যন্ত পুনর্বাসিত হয়েছেন ২৮ লাখ মানুষ। আর সব মিলিয়ে এ পর্যন্ত ৪১ লাখ ৪৮ হাজার ভূমি ও গৃহহীন মানুষ পুনর্বাসিত হয়েছেন। দেশের উপজেলাগুলোর প্রায় ২৫ হাজার স্থানে আশ্রয়ণ প্রকল্পের ঘর নির্মাণ করা হয়েছে। ২১টি জেলার সকল উপজেলাসহ মোট ৩৩৪টি উপজেলার সব ভূমি ও গৃহহীনদের পুনর্বাসিত করা হয়েছে। শুধু মুজিববর্ষ উপলক্ষেই ১১ লাখ ৯৪ হাজার ৩৫ জন ছিন্নমূল মানুষকে ঘর উপহার দেয়া হয়।

 

 

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, উপকারভোগী, সংখ্যা ও পুনর্বাসন পদ্ধতি বিবেচনায় এটি বিশ্বের বৃহত্তম সরকারি পুনর্বাসন কর্মসূচি। এ পর্যায়ে ভূমিহীন ও গৃহহীনমুক্ত হতে যাচ্ছে মানিকগঞ্জ, রাজবাড়ী, ময়মনসিংহ, শেরপুর, দিনাজপুর, ঠাকুরগাঁও, নওগাঁ, নাটোর, পাবনা, কুষ্টিয়া, পিরোজপুর ও ঝালকাঠি- এই ১২টি জেলার সকল উপজেলাসহ সারাদেশের ১২৩টি উপজেলা। মুজিববর্ষে একক ঘর নির্মাণের লক্ষ্যে বিশেষ কর্মসূচিতে সারাদেশে উদ্ধারকৃত খাস জমির হালনাগান পরিমাণ ৬ হাজার ২০০ একর।

 

 

১৯৭২ সালে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান প্রথমবারের মতো ভূমি ও গৃহহীনদের মাঝে ঘর দেয়ার উদ্যোগ নেন। কিন্তু ১৫ই আগস্টের হত্যাকান্ডের পর এ উদ্যোগ আর আলোর মুখ দেখেনি। পরে ১৯৯৭ সালে শেখ হাসিনার সরকার আবারও ভূমি ও গৃহহীনদের ঘর দেয়ার উদ্যোগ নেন। যা এখনও চলমান।

 

 

সূত্র – বৈশাখী  অনলাইন

Print Friendly and PDF