চট্টগ্রাম, রোববার, ২৬ মে ২০২৪ , ১২ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

পঞ্চম শিরোপা জিতে নিজের অবসর নিয়ে যা বললেন ধোনি

প্রকাশ: ৩০ মে, ২০২৩ ১১:৩৯ : পূর্বাহ্ণ

সকলে ধরে নিয়েছিলেন ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ১৬তম আসরের শিরোপা জয় করার পরই ব্যাট-প্যাড তুলে রাখার ঘোষণা দেবেন ক্যাপ্টেন কুল মহেন্দ্র সিং ধোনি। কিন্তু ঘটনা হলো উল্টো, অবসর নিয়ে মুখ খুললেও আসল কথাটি তিনি এড়িয়ে গেলেন। তবে জানিয়ে দিলেন কবে তিনি ব্যাট-প্যাড তুলে রাখবেন।

ধোনির হাত ধরেই ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগের (আইপিএল) ইতিহাসের অন্যতম সেরা দল হয়েছে চেন্নাই সুপার কিংস। মিলিয়ন ডলারের এই লিগে সবচেয়ে বেশিবার প্লে-অফ খেলা দলও চেন্নাই। দীর্ঘ যাত্রার মাঝে দুই বছর নিষেধাজ্ঞার কারণে আইপিএলে অংশ নিতে পারেনি চেন্নাই। এ ছাড়া বাকি ১৪ আসরেই খেলেছে দলটি। প্লে-অফে উঠেছে ১২ বার।

 

 

এবারের আসরসহ ১২টি প্লে-অফের ১০টিতেই ফাইনাল খেলেছে হলুদ শিবির। এমন সাফল্যের কারণে পাঁচবারের শিরোপাজয়ী আরেক দল মুম্বাই ইন্ডিয়ান্স থেকেও সফল দল হিসেবে বিবেচনা করা হয় চেন্নাইকে।

চ্যাম্পিয়ন ট্রফি হাতে তুলে দেয়ার আগে অবসরের বিষয়ে ইঙ্গিতপূর্ণ প্রশ্ন ছুড়েন ধারাভাষ্যকার হার্শা ভোগলে। জবাবে ৪১ বছর বয়সী ধোনি বলেন, অবসর ঘোষণা করার জন্য এটাই সেরা সময়। এখন সবচেয়ে সহজ হচ্ছে সবাইকে ধন্যবাদ দিয়ে অবসর নেয়া। কিন্তু কঠিন কাজটা হচ্ছে, আগামী নয় মাস কঠোর পরিশ্রম করে আরেকটা মৌসুম খেলার চেষ্টা করা। যে ভালোবাসা আমি চেন্নাইয়ের সমর্থকদের কাছ থেকে পেয়েছি, আরও এক মৌসুম খেললে তাদের জন্য আমার পক্ষ থেকে একটা উপহার দেয়া হবে। জানি ধকলটা শরীরের ওপর দিয়ে যাবে, তবুও…।

 

 

তিনি আরও বলেন, আসলে আবেগপ্রবণ হওয়াটাই স্বাভাবিক, এটাই আমার ক্যারিয়ারের শেষ অংশ। এখান থেকেই সব শুরু হয়েছিল, পুরো গ্যালারি আমার নামে স্লোগান দিয়েছে। তখন আমার চোখ ছলছল করছিল। চেন্নাইতে এমনটাই হয়েছিল। কিন্তু আরও এক মৌসুম তাদের জন্য যতটা পারি খেলতে পারলে ভালো হবে।

 

 

এরপরই ম্যাচ জয়ের কৃতিত্ব ব্যাটারদের দেন ক্যাপ্টেন কুল। আগে চারবার আইপিএল জিতলেও পঞ্চম ট্রফিতে আলাদা ভালবাসা রয়েছে জানিয়ে ধোনি বলেন, আমার কাছে সব ট্রফিই বিশেষ অনুভূতির। কিন্তু আইপিএলের বিশেষত্ব হল, প্রতিটা ম্যাচই টানটান উত্তেজনার। আপনাকে সব সময় তৈরি থাকতে হবে। আজ আমাদের খেলায় অনেক ভুল হয়েছে। বোলিং বিভাগ ঠিকঠাক নিজেদের কাজ করতে পারেনি। কিন্তু ব্যাটিং বিভাগ সব চাপ কাটিয়ে আমাদের জয় এনে দিয়েছে।

 

Print Friendly and PDF