চট্টগ্রাম, বুধবার, ৭ ডিসেম্বর ২০২২ , ২২শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

পবিত্র কুরআন তিলাওয়াতকালে মারা গেলেন তাসলিমা (ভিডিও)

প্রকাশ: ২৭ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ২:৩৯ : অপরাহ্ণ

পবিত্র কুরআন তিলাওয়াত করা অবস্থায় ইন্দোনেশিয়ার এক নারী ইন্তেকাল করেছেন। দেশটির পূর্ব জাকার্তার কাম্পুং মেলায়ু এলাকার আলবারকাহ কেএইচ আব্দুল্লাহ সায়াফি মসজিদে নিয়মিত কুরআন তেলাওয়াত চলাকালীন গেল ১৫ সেপ্টেম্বর মারা যান উস্তাদা তাসলিমা নামের ওই ইসলামি স্কলার।

আলজাজিরা মুবাশির-এর বরাতে ইন্ট্যারন্যাশনাল কুরআন নিউজ এজেন্সি (ইকনা)দ্য ইসলামিক ইনফরমেশন সেন্টারসহ বিভিন্ন ইসলামি গণমাধ্যমে এ খবর প্রকাশিত হয়েছে। খবর অনুযায়ী, তার মৃত্যুর সে ভিডিও সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যাপক আকারে ছড়িয়ে পড়েছে।

আলজাজিরা মুবাশিরের প্রতিবেদনে জানা যায়, উপস্থিত নারীদের উদ্দেশে পবিত্র কুরআন খতম করছিলেন শিক্ষিকা তাসলিমা। কুরআন পাঠ শেষ করে পুনরায় সূরা বাকারা থেকে তিলাওয়াত শুরু করেন তিনি। এরপর সেই সূরার পাঁচ আয়াত পর্যন্ত তিলাওয়াত করেন তিনি।

আয়াতটি হলো-‘তারা তাদের সৃষ্টিকর্তার পক্ষ থেকে সুপথপ্রাপ্ত এবং তারাই সফলকাম।’ এর পরই তিনি মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন। কুরআনের সেই আয়াতটি ছিল তার পঠিত সর্বশেষ আয়াত।

তিলাওয়াতের মধ্যভাগে এমন পরিস্থিতিতে কিংকর্তব্যবিমূঢ় হয়ে পড়েন উপস্থিত নারীরা। তাৎক্ষণিক উপস্থিত অনেকে তার সাহায্যে এগিয়ে আসেন। কিন্তু ততক্ষণে তিনি মারা যান।

ঘটনার পর আস সাফিয়াহ উম্মাহাত তালিম কাউন্সিলের অন্যতম সদস্য উস্তাদা ইতা রাসিদ এএস জানান, উস্তাদা তাসলিমা দক্ষিণ জাকার্তার তানজুং বারাতের বাসিন্দা ছিলেন।

সোশ্যাল মিডিয়া ব্যবহারকারীরা ঘটনার ফুটেজটি শেয়ার করে তাসলিমার প্রশংসা করে বলেছেন, ‘অনেক সম্মানজনক উপায়ে মৃত্যুবরণ করেছেন তিনি।’ তারা উস্তাদা তাসলিমাকে জান্নাতে স্থান দান করার জন্য আল্লাহর কাছে প্রার্থনাও করেছেন।

এর আগেও এমন বেশ কয়েকটি ঘটনা ঘটেছে, যেখানে লোকেরা নামাজ পড়ার সময় কিংবা কুরআন তেলাওয়াত করতে গিয়ে মৃত্যুবরণ করেছেন। ২০১৮ সালে সৌদি আরবে একজন পাকিস্তানি মুসলিম প্রবাসী নামাজ পড়ার সময় মারা যান।

২০১৭ সালে শেখ জাফর আব্দুল রহমান নামে ইন্দোনেশিয়ার একজন স্বনামধন্য কুরআন তেলাওয়াতকারী একটি টিভি অনুষ্ঠানে কুরআন তেলাওয়াত করার সময় মারা যান। একই বছর সৌদি বিশ্ববিদ্যালয়ের একজন অধ্যাপক মসজিদে আসরের নামাজ শেষ করার কয়েক সেকেন্ডের মধ্যে মারা গিয়েছিলেন।

 

Print Friendly and PDF