চট্টগ্রাম, সোমবার, ৩ অক্টোবর ২০২২ , ১৮ই আশ্বিন, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নারীরা জীবনে কত সময় শপিং করে কাটান?

প্রকাশ: ২২ সেপ্টেম্বর, ২০২২ ৪:৫৭ : অপরাহ্ণ

নারী যে শুধুই নিজের জন্য কেনাকাটা করেন তা নয়, পরিবার ও প্রিয়জনদের জন্যও কেনাকাটা করতে ভালোবাসেন।

শপিং করতে ভালোবাসেন না, এমন নারী হয়তো চাইলেও খুঁজে পাওয়া যাবে না। বিশেষ করে কোনো উৎসবের আগে কেনাকাটার ঝোঁক বেড়ে যায় অনেকটাই বেশি! তাই না? আর কেনাকাটা করতে তো কোনো ক্ষতি নেই। এমনকি শুধুই কেনাকাটা নয়, কেনাকাটা না করলেও শপিং মলে ঘুরে এলে যেন মন ভালো হয়ে যায়। তাই না?যাকে বলে উইনডো শপিং। আপনিও কী এই ধরনের শপিং করতেই বেশি ভালোবাসেন? নারীদের শপিংয়ের নেশা নিয়ে হাসি ঠাট্টা কিছু কম হয় না।

গবেষণায় দেখা গেছে, জীবনের সাড়ে ৮ বছর শুধুমাত্র শপিং করেই কাটিয়ে দেন নারী। মানে, এরকমটাই কি সত্যি? ভাবলেও অবাক লাগে তাই না?

মার্কেটিং রিসার্চ ফার্ম ওয়ানপোল ডট কমের পক্ষে এই সমীক্ষা চালানো হয়েছিল। দুই হাজার নারীর উপরেই এই সমীক্ষা চালানো হয়। সেখানে  নারীদের শপিং নিয়ে নানা তথ্য় উঠে এসেছে। আর এক একটি তথ্য় বেশ চমকে দেবে আপনাকে। অবাক হয়ে যাবেন আপনি। মজার তো বটেই, সঙ্গে অবাক করাও।

যাইহোক, সেখানেই দেখা গেছে বছরের প্রায় ৪০০ ঘণ্টা তারা জামাকাপড়, বই, খাবার এবং বাথরুমের জিনিসপত্র কিনতে পার করে দেন। মানে সারা বছরের শুধুমাত্র ৪০০ ঘণ্টা পার হয় এই কেনাকাটা করতেই? তাতে অসুবিধাই বা কোথায়? শপিং করতে ভালোবাসেন যে নারীরা, তাদের কাছে এই সময়টা তো খুবই কম।

উইন্ডো শপিং করেন কতক্ষণ?

গবেষণায় দেখা গেছে, একজন নারী জামাকাপড় কেনার জন্য প্রায় ৩০ বার মলের ভেতর ঘোরাফেরা করেন। এর জন্য তারা পার করেন ১০০ ঘণ্টা! এর সঙ্গে অতিরিক্ত ৪০ ঘণ্টা ৩০ মিনিট পার করেন সঠিক জুতা খুঁজে নেয়ার জন্য। এমনকি এক বছরে পছন্দের বই ও ম্যাগাজিন খুঁজে বের করতে তারা ৩১ ঘণ্টা ২১ মিনিট ব্যায় করেন। আর এক বছরে ৪৯ ঘণ্টা শুধুমাত্র উইন্ডো শপিং করে থাকেন তারা।

শপিং করুন কিন্তু খেয়াল রাখুন

জামাকাপড় বা অন্যান্য অ্যাকসেসরিজ কেনার সময়ে আরো বিচক্ষণ হন। অতিরিক্ত জিনিসপত্র দেখে মাথা ঘুরে যেতেই পারে আপনার। কিন্তু কোনটা নেবেন আর কোনটা নেবেন না এটা নিয়ে ভাবতে ভাবতে খুব বেশি সময় কাটানো ঠিক নয়। কারণ, এতে শুধুই সময় নষ্ট হয়। তাই খেয়াল রাখুন, খুব কম সময়ে কয়েকটা জিনিসের মধ্য়ে নিজের পছন্দের জিনিস নিয়ে আসার। সেটা কিনুন এবং তার জন্য অতিরিক্ত সময় নষ্ট করবেন না। শপিং করতে হবে বুদ্ধি খরচ করে। তাহলেই একমাত্র পরিস্থিতি আপনার হাতের মুঠোয় থাকবে।

শপিং করার সময় আর কী কী খেয়াল রাখতে হবে

কেনাকাটা করার সময়ে আরো কয়েকটি বিষয় আপনাকে খেয়াল রাখতে হবে। যাতে কিনতে গিয়ে আপনি ঠকে না যান। কারণ, বড় বড় ব্র্যান্ডের পোশাক কেনার থেকেও বেশি আমাদের ঝোঁক থাকে ছোট দোকান থেকে কেনাকাটা করার প্রতি। সেখানে দরদাম করে কেনাকাটা করতে আমাদের সবারই ভালো লাগে। মুহূর্তগুলো উপভোগ্য। কারণ মেয়েরা কেনাকাটা করার সময় দরদাম করার বিষয়টিও উপভোগ করেন। তাই কোনো কিছু আপনি যখন কিনছেন, সবার আগে মার্কেট রিসার্চ করুন। কোন জিনিসের কত দাম তা খেয়াল রাখুন। তাহলে আপনাকে কেউ ঠকাতে পারবে না।

Print Friendly and PDF