চট্টগ্রাম, বুধবার, ৬ জুলাই ২০২২ , ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

বাড়ি থেকে পালিয়ে বিয়ে করল কিশোরী, উল্টো বাবার নামে অপহরণের মামলা

প্রকাশ: ২৮ এপ্রিল, ২০২২ ৩:২৮ : অপরাহ্ণ

এক সপ্তাহ আগে হঠাৎ করে বাড়ি থেকে নিখোঁজ হয়েছিলেন দুয়া জাহরা। এতদিন পর খোঁজ মিলেছে তার। জানা গেছে জহির নামে একজনকে বিয়ে করেছেন ১৪ বছর বয়সী এই কিশোরী। তবে করাচি থেকে নিখোঁজ হওয়া এই কিশোরী এখন তার বাবা মেহদি আলি কাজমি ও এক কাজিনের বিরুদ্ধে লাহোর কোর্টে মামলা করেছেন। খবর জিও টিভির।

পাঞ্জাবের পাকপাত্তান শহরে ওই কিশোরীকে খুঁজে পায় পুলিশ। মামলায় দুয়া অভিযোগ করেন, তার বাবাকে তার লাহোরের বাড়িতে ঢুকে এক কাজিনের সহায়তায় তাকে অপহরণের চেষ্টা করে। তিনি বলেন, আমার বাবা আমাকে জোর করে আমার চাচাতো ভাই জয়নুল আবিদীনের সঙ্গে বিয়ে দিতে চেয়েছিলেন। আমার বাবা এবং আবিদীন আমার বাড়িতে ঢুকে আমাকে এবং আমার স্বামীকে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করে ও হুমকি দেয়।

দুয়া বলেন, তার প্রতিবেশীরা এই অপহরণ চেষ্টা রুখে দেয়। তিনি আরও বলেন, আমি নিজ ইচ্ছায় বিয়ে করেছি এবং ‘আমার স্বামীর সঙ্গে সুখে’ বাস করছি। স্বামীর সঙ্গে থাকার ইচ্ছা ব্যক্ত করে বাবা ও চাচাতো ভাইয়ের বিরুদ্ধে ফৌজদারি কার্যবিধির অধীনে ব্যবস্থা নেয়ার দাবি জানিয়েছেন দুয়া। ম্যাজিস্ট্রেট আদালত দুয়ার মামলাটি গ্রহণ করে ১৮ মে তার বাবার বিরুদ্ধে প্রমাণসহ তাকে তলব করেছে। এদিকে একটি জেলা ও দায়রা জজ আদালতে হয়রানি পৃথক আরেকটি আবেদন করেছেন দুয়া।

Print Friendly and PDF