চট্টগ্রাম, বুধবার, ৬ জুলাই ২০২২ , ২২শে আষাঢ়, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

জুমার নামাজের পর মসজিদে ইবাদতে মশগুল, বিস্ফোরণে প্রাণ গেল ৩৩ মুসল্লির

প্রকাশ: ২৩ এপ্রিল, ২০২২ ১:২৩ : অপরাহ্ণ

আফগানিস্তানের কুন্দুজ প্রদেশের ইমাম সাহেব জেলার একটি সুন্নি মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় শিশুসহ অন্তত ৩৩ জন নিহত এবং ৪৩ জন আহত হয়েছে।

স্থানীয় সংবাদমাধ্যম তোলো নিউজ ইসলামিক এমিরেট অব আফগানিস্তানের মুখপাত্র ও তালেবান সরকারের তথ্যমন্ত্রী জাবিউল্লাহ মুজাহিদের টুইট বার্তার বরাতে এ খবর দিয়েছে। এ নিয়ে গেল দুইদিনে পরপর দুটি বড় ধরনের বোমা হামলার ঘটনা ঘটলো দেশটিতে।

প্রতিবেদন অনুযায়ী, হামলার নিন্দা জানিয়ে জাবিহুল্লাহ মুজাহিদ বলেন, জড়িতদের গ্রেপ্তারের চেষ্টা চলছে। প্রত্যক্ষদর্শীরা জানিয়েছেন, ৩০ জনেরও বেশি মানুষ নিহত ও আহত হয়েছেন।

জেলা নিরাপত্তা বাহিনীর প্রধান হাফিজ ওমর বলেন, শুক্রবার বিকাল সাড়ে ৩টার দিকে মাওলাওই সেকান্দার মসজিদে এ বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। রোজার দিন হওয়ায় জুমার নামাজ শেষে অনেকেই মসজিদে ইবাদত করছিলেন। মসজিদটি মাদরাসা বা ধর্মীয় শিক্ষালয় হিসেবেও ব্যবহৃত হতো।

প্রাদেশিক কর্মকর্তারা হতাহতের ঘটনা নিশ্চিত করলেও ঘটনার বিস্তারিত জানাতে পারেনি। কেউ এখনও দায় স্বীকার করেনি।

এ ছাড়াও শুক্রবার কাবুলের পিডি৭-এ দুনিয়া বিশ্ববিদ্যালয় এলাকায়ও বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে।

কাবুলের পিডি৭ -এর কমান্ডার জানিয়েছেন, ওই এলাকায় একটি ল্যান্ডমাইন বিস্ফোরণে এখনও পর্যন্ত একজন আহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

এর আগে বৃহস্পতিবার, বালখ প্রদেশের রাজধানী মাজার-ই-শরিফের সি-দুকান মসজিদে হামলায় কয়েক ডজন লোক নিহত ও আহত হন। এই হামলার দায় স্বীকার করেছে আইএস।

আলজাজিরার প্রতিবেদন অনুযায়ী, এসব হামলার ঘটনায় চ্যালেঞ্জের মুখে পড়েছে তালেবান সরকার। শুক্রবারের হামলা ছিল গত বছর আগস্টে তালেবান ক্ষমতা নিয়ন্ত্রণে নেওয়ার পর সবচেয়ে বড় হামলার ঘটনা।

আফগানিস্তানের তালেবান সরকার জঙ্গি গোষ্ঠী আইএসের খোরাসান শাখাকে (আইএস-কে) পরাজিত করেছে বলে দাবি করলেও তাদের নিয়ন্ত্রণ করা কঠিন হয়ে পড়েছে।

Print Friendly and PDF