চট্টগ্রাম, বৃহস্পতিবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২২ , ২৩শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

‘ইমরান খান একজন সৎ প্রধানমন্ত্রী’, বিদায়ে খুশি অধিকাংশ পাকিস্তানি : রিপোর্ট

প্রকাশ: ১৪ এপ্রিল, ২০২২ ১১:৪৮ : পূর্বাহ্ণ

পাকিস্তানের মসনদ থেকে অনাস্থা ভোটে ইমরান ক্ষমতাচ্যুত হওয়ায় খুশি হয়েছেন অধিকাংশ পাকিস্তানি। সাম্প্রতিক এক সমীক্ষায় এ তথ্য জানা গেছে। নিউ ইয়র্ক ভিত্তিক আন্তর্জাতিক সংবাদমাধ্যম ব্লুমবার্গ বুধবার (১৩ এপ্রিল) এক প্রতিবেদনে এ তথ্য দিয়েছে।

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, জরিপে অংশ নেয়া পাকিস্তানের ৫৭ শতাংশ ব্যক্তি জানান তারা ইমরানের বিদায়ে খুশি। তবে বাকি ৪৩ শতাংশ ইমরানের বিদায়ে ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন।

ইমরানের বিরুদ্ধে পার্লামেন্টে অনাস্থা ভোটের কয়েক ঘণ্টা পর এ সমীক্ষাটি চালায় গ্যালাপ পাকিস্তান। জরিপটি দেশটির ১০০টির বেশি জেলার এক হাজারের বেশি নারী ও পুরুষের ওপর চালানো হয়। গড়পড়তা একটি নাম্বার ডায়াল করে মতামত জানতে চাওয়া হয়।

জরিপের ফলাফলে বলা হয়েছে, যারা ইমরানের বিদায়কে ইতিবাচক হিসেবে মত দিয়েছেন, তারা ইমরান খান সরকারের মূল্যস্ফীতি নিয়ন্ত্রণে ব্যর্থতা নিয়েই বেশি অসন্তোষের কথা জানান।

আর যারা ইমরান খানের বিদায়ে অসন্তুষ্ট বলে জানিয়েছেন, তাদের অধিকাংশ এ মতামতের পেছনে প্রধান কারণ হিসেবে ‘ইমরান খান একজন সৎ প্রধানমন্ত্রী’ ছিলেন বলে উল্লেখ করেছেন।

এদিকে ইমরান খানের বিরুদ্ধে তদন্ত শুরু করেছে দেশটির ফেডারেল ইনভেস্টিগেশন এজেন্সি (এফআইএ)। অভিযোগ, ইমরান ক্ষমতায় আসার শুরুর দিকে একটি দামি নেকলেস উপহার হিসেবে পান।

সেটি রাষ্ট্রীয় উপহার ভাণ্ডারে জমা না দিয়ে এক জুয়েলার্সের কাছে ১৮ কোটি রুপিতে বিক্রি করে দিয়েছেন। বুধবার (১৩ এপ্রিল) পাকিস্তান সংবাদ মাধ্যম এক্সপ্রেস ট্রিবিউনের প্রতিবেদনে এই তথ্য জানানো হয়েছে।

ইমরানের বিদায়ের পর গত ১১ এপ্রিল পাকিস্তানের ২৩তম প্রধানমন্ত্রী হিসেবে বিনা প্রতিদ্বন্দ্বিতায় নির্বাচিত হন পাকিস্তান মুসলিম লিগ-এন এর প্রধান নেতা শাহবাজ শরীফ। তিনি সাবেক পাকিস্তানি প্রধানমন্ত্রী নওয়াজ শরীফের ছোট ভাই।

Print Friendly and PDF