চট্টগ্রাম, শনিবার, ৩ ডিসেম্বর ২০২২ , ১৮ই অগ্রহায়ণ, ১৪২৯ বঙ্গাব্দ

নার্সিংহোমে পাশাপাশি শুয়ে প্রেম, ৮৪ বছরের প্রেমিকাকে নিয়ে পালালেন বৃদ্ধ

প্রকাশ: ১১ এপ্রিল, ২০২২ ১২:৩৬ : অপরাহ্ণ

বার্ধক্যজনিত অসুস্থতায় নার্সিংহোমে ছিলেন ৮০ বছরের বৃদ্ধ, রালফ গিবস। তার পাশের বেডেই ছিলেন ৮৪ বছরের বৃদ্ধা, ক্যারল লিসলে। পাশাপাশি বেডে শুয়ে চিকিৎসা নিতে নিতেই প্রেমে পড়ে যান একে অপরের।

আর প্রেমে পড়ে যুবক হয়ে যান বৃদ্ধ রালফ। আচমকা একদিন ডাক্তার, নার্সদের চোখে ধুলো দিয়ে বৃদ্ধা প্রেমিকাকে নিয়ে পালালেন নায়ক! তাতে কড়া শাস্তিও পেতে হয়েছে তাকে।

টাইমস নাও নিউজের প্রতিবেদন অনুযায়ী, ঘটনা অস্ট্রেলিয়ার পার্থ শহরের। সেখানেই চিকিৎসা চলছিল এই দুই প্রবীণের। ডিমেনশিয়া ও পারকিনসনের রোগী প্রেমিকা ক্যারল লিসলে নিয়ে সম্প্রতি পালিয়ে যান রালফ। পালানোর দিন (৪ জানুয়ারি) কীভাবে যেন একটি গাড়িও ম্যানেজ করে ফেলেন তিনি।

যতক্ষণে নার্সিংহোম কর্তৃপক্ষ ঘটনা জানতে পেরে পুলিশে খবর দেয় ততক্ষণে রালফ গাড়ি চালিয়ে পৌঁছে যান প্রায় কুইন্সল্যান্ডে। জায়গাটা পার্থ শহর থেকে ৪৮০০ কিলোমিটার দূরে। তবে অবশেষে পুলিশের হাতে ধরা পড়তে হয়েছে ওই যুগলকে।

রালফ জানিয়েছেন, কুইন্সল্যান্ডে ক্যারলের বাড়ি যাচ্ছিলেন তারা। যদিও পুলিশ জানিয়েছে, পথেই অসুস্থ হয়ে পড়েন ক্যারল। উভয়কে যখন উদ্ধার করা হয় ক্যারল তখন ধুঁকছিলেন। শেষ পর্যন্ত প্রশাসন হেলিকপ্টারে করে রালফ ও ক্যারলকে পার্থের ওই নার্সিংহোমে ফিরিয়ে আনে।

তবে এখানেই রালফ-ক্যারলের প্রেম কাহিনী শেষ হয়নি। ঘটনা গড়িয়েছে আদালত পর্যন্ত। কারণ পুলিশ রালফের বিরুদ্ধে মামলা করে। এফআইআরে বলা হয়, রালফ যা করেছেন, তাতে করে জীবন সংশয় হতে পারত ক্যারলের। যদিও আদালতে রালফের উত্তর ছিল, ‘আমি ক্যারলকে বাড়ি পৌঁছে দিচ্ছিলাম। সেই সঙ্গে সামান্য প্রেম করছিলাম।’

তার জবাব শুনে বিচারক বকা দেন প্রেমিক রালফকে। বলেন, ‘আপনার প্রেমের জন্যে মৃত্যু হতে পারত ক্যারলের। বিপজ্জনক কাজ করেছেন।’ কেবল বকাঝকা করেই ছেড়ে দেওয়া হয়নি আশি বছরের প্রেমিককে। ৭ মাসের জেল হয়েছে রালফের। যদিও দোষীর অসুস্থতা ও বয়সের কারণে এখনই তা কার্যকর হয়নি বলেই জানা গিয়েছে।

Print Friendly and PDF