চট্টগ্রাম, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০২৪ , ৮ই শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

ডেঙ্গুর ৪ ধরনই সক্রিয়, রোগী বেড়েছে ৬ গুণের বেশি

প্রকাশ: ২ জুন, ২০২৩ ৩:১১ : অপরাহ্ণ

দেশে ডেঙ্গুর ৪টি ধরনই এখন সক্রিয়। গেল বছরের প্রথম ৫ মাসের তুলনায় এ বছরের প্রথম ৫ মাসে রোগী বেড়েছে ৬ গুণের বেশি। আক্রান্ত ও মৃত্যু আরও বাড়ার শঙ্কায় আছে স্বাস্থ্য অধিদপ্তর। জটিলতা এড়াতে সরকারি ল্যাবে শনাক্তকারী কিট সরবরাহের তাগিদ দিয়েছেন বিশেষজ্ঞরা। এদিকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের শঙ্কা ধীরে ধীরে বাস্তব হচ্ছে। হাসপাতালগুলোতে বাড়তে শুরু করেছে ডেঙ্গু রোগী।

পরিসংখ্যান বলছে, ২০২২ সালের প্রথম ৫ মাসে ডেঙ্গু রোগী ছিল ৩১৭ জন। ওই সময়ে এই রোগে কারো মৃত্যুর খবর মেলেনি। তবে এ বছরের প্রথম ৫ মাসেই আক্রান্ত, ১ হাজার ৯২৭ জন। এর মধ্যে মৃত্যু হয়েছে, ১৩ জনের। অর্থাৎ গেল বছরের একই সময়ের তুলনায় রোগী বেড়েছে ১৬ গুন।

 

 

সোহরাওয়ার্দী মেডিকেল কলেজের ভাইরোলজিস্ট  ডা. মো. জাহিদুর রহমান খান বলেন, এই সংখ্যা সামনে আরও বাড়বে। কারণ দেশে এখন ডেঙ্গুর চারটি ধরণই সক্রিয় রয়েছে।

এই ভাইরোলজিস্ট বলছেন, প্রতি ১শ’ জন ডেঙ্গু রোগীর মধ্যে মাত্র ২৫ জনের লক্ষণ দেখা যায়। তাই জটিলতা এড়ানো ও সুচিকিৎসায় হাসপাতালে ভর্তি রোগীদের ডেঙ্গুর ধরণ পরীক্ষা করা দরকার। তবে এজন্য সরকারি হাসপাতালের ল্যাবে সরবরাহ করতে হবে শনাক্তকারী কিট।রোগটির টিকা ও ওষুধ না থাকায় ডেঙ্গু প্রতিরোধের কোনো বিকল্প নেই বলছেন এই বিশেষজ্ঞ।

 

 

সূত্র – চ্যানেল২৪

Print Friendly and PDF