চট্টগ্রাম, বুধবার, ৮ ডিসেম্বর ২০২১ , ২৩শে অগ্রহায়ণ, ১৪২৮ বঙ্গাব্দ

ভারতের বিপক্ষে বড় জয়ে উল্লাসে ফেটে পড়েছে দুবাইয়ে বসবাসকারী পাকিস্তানি প্রবাসীরা

প্রকাশ: ২৫ অক্টোবর, ২০২১ ১২:১৬ : অপরাহ্ণ

 

 

 

 

 

ভারতের বিপক্ষে বড় জয়ে উল্লাসে ফেটে পড়েছে দুবাইয়ে বসবাসকারী পাকিস্তানি প্রবাসীরা। ম্যাচ শেষে রাস্তায় নেমে আনন্দ মিছিল করেছে তারা। এ সময় ভারতের বড় ভাই সুলভ আচরণেরও নিন্দা করে পাকিস্তান ক্রিকেটের সমর্থকরা। দুর্দান্ত এ শুরুর পর এখন বিশ্বজয়েরও আশা করছেন পাকিস্তানিরা।

সংযুক্ত আরব আমিরাত পরিচিত ব্যবসা-বাণিজ্যের জন্য। বিশ্বকাপের মতো একটা বৈশ্বিক আসর এখানে হলেও শহরে নেই কোনো উত্তাপ। অবশেষে এ অপবাদ থেকে মুক্তি পেল দুবাই। শহরটিকে এ অসম্মানের হাত থেকে বাঁচাল পাকিস্তানের ক্রিকেট সমর্থকরা।


ভারতের বিপক্ষে বিশ্বকাপের প্রথম ম্যাচে ঐতিহাসিক জয় পাওয়ার পরপরই দুবাইয়ের রাস্তায় নেমে আসেন পাকিস্তানি প্রবাসীরা। এ সময় নেস্তোর খেজুর বাগান এলাকায় আনন্দ মিছিল করেন তারা। স্লোগান দেন পাকিস্তানি ক্রিকেটারদের নাম ধরে ধরে, যেখান থেকে বাদ যাননি ইমরান খানও।

পাকিস্তানি এক সমর্থক বলেন, ‘আমাদের ছেলেরা খুব ভালো খেলেছে। বিশেষ করে শাহীন আফ্রিদী তো ওদের উড়িয়ে দিয়েছে। আমরা খুবই খুশি এমন জয়ে।’  আরও বলেন, ‘বাবর আজম এবং রিজওয়ান ভারতকে দেখিয়ে দিয়েছে কীভাবে ক্রিকেট খেলতে হয়। তারা আমাদের অনেক ছোট করত। এখন তাদের শিক্ষা হয়েছে।’
বিশ্বকাপে এমন শুরুর পর এখন টি-টোয়েন্টির দ্বিতীয় শিরোপা ঘরে তোলার স্বপ্নে বুঁদ পাকিস্তানি সমর্থকরা। তাদের আশা, ক্রিকেটাররা নিজেদের স্কিলের ওপর বিশ্বাস রেখে এগিয়ে যাবে দৃপ্ত পদক্ষেপে। আরেক সমর্থক বলেন, ‘আমরা বিশ্বজয়ের আনন্দ পেয়ে গেছি। আমাদের আর কিছুই চাওয়ার নেই। এখন শিরোপা ঘরে আসলে সেটা হবে বোনাস।’


টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে রোববার (২৪ অক্টোবর) ভারতকে ১০ উইকেটে লজ্জাজনকভাবে হারিয়েছে পাকিস্তান। ভারতের দেওয়া ১৫২ রানের লক্ষ্য উদ্বোধনী জুটিতে ১৩ বল হাতে রেখেই পেরিয়েছে বাবর আজমের দল।

দুবাই আন্তর্জাতিক ক্রিকেট স্টেডিয়ামে ১৫১ রানের জবাব উদ্বোধনী জুটিতেই দিয়েছে পাকিস্তান। শেষ পর্যন্ত অপরাজিত থেকে পাকিস্তান দুই ওপেনার বাবর আজম ৬৮ ও মোহাম্মদ রিজওয়ান ৭৯ রান করেছেন। দুজনের ইনিংসেই ছিল ৬টি করে চারের মার। রিজওয়ান খেলেছেন ৫৫ বল ও বাবর ৫২ বল।

Print Friendly and PDF