চট্টগ্রাম, বুধবার, ৫ আগস্ট ২০২০ , ২১শে শ্রাবণ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

চট্টগ্রামে নতুন সড়ক আইনে মামলা-জরিমানা শুরু

প্রকাশ: ৪ ডিসেম্বর, ২০১৯ ৯:৪১ : অপরাহ্ণ

নতুন ‘সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮’ অনুযায়ী আইন লঙ্ঘনকারীদের মামলা দেওয়া শুরু করেছে চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) ট্রাফিক বিভাগ। সিএমপি ট্রাফিকের দুটি বিভাগ সীমিত পরিসরে এই কার্যক্রম শুরু করেছে।

গত ১ নভেম্বর থেকে আইনটি কার্যকর হলেও পুলিশ এত দিন আইন লঙ্ঘনকারীদের মামলা দেওয়া থেকে বিরত ছিল। নতুন আইন সম্পর্কে জনগণকে সচেতন করতে এই পদক্ষেপ নেওয়া হয়েছে বলে জানিয়েছিল তারা।

প্রসঙ্গত, গত বছরের ২৯ জুলাই রাজধানীর বিমানবন্দর সড়কে বেপরোয়া বাসের চাপায় দুই শিক্ষার্থী নিহত ও ৯ জন আহত হয়। এরপর শিক্ষার্থীদের ‘নিরাপদ সড়ক আন্দোলনের’ মুখে সরকার ২০১৮ সালের ১৯ সেপ্টেম্বর নতুন সড়ক পরিবহন আইন পাস করে। মালিক-শ্রমিক সংগঠনগুলোর চাপে এটি কার্যকর করতে এক বছরের বেশি সময় লেগে যায়।

নতুন সড়ক পরিবহন আইনে বেশির ভাগ ধারার জরিমানা ১০ থেকে ৫০ গুণ বাড়ানো হয়েছে। আগে যেসব ধারায় এক মাস কারাদণ্ডের বিধান ছিল, এখন তা দুই বছর পর্যন্ত হয়েছে। আইনের বেশির ভাগ ধারাতেই সর্বোচ্চ শাস্তি কত হবে তা আছে, সর্বনিম্ন শাস্তির উল্লেখ নেই।

এদিকে, চট্টগ্রাম মেট্রোপলিটন পুলিশের (সিএমপি) ট্রাফিক বিভাগ প্রথম দিনেই ১৩ মামলার পাশাপাশি জরিমানা করা হয়েছে ২৩ হাজার টাকা।

ট্রাফিক পুলিশ বলছে, আজ বুধবার (৪ ডিসেম্বর) থেকে সিএমপি ট্রাফিকের দুটি বিভাগের মধ্যে সীমিত পরিসরে এই কার্যক্রম শুরুর প্রথম দিনে নতুন ‘সড়ক পরিবহন আইন-২০১৮ অমান্য করায় ১৩টি মামলা করা হয়।

এর মধ্যে দুই ডিভিশনে লাইসেন্স না থাকায় ২টি, চালক ও যাত্রীর হেলমেট না থাকায় ৮টি, মোটরসাইকেলে অতিরিক্ত যাত্রী থাকায় অথাৎ তিনজন যাত্রী থাকায় ১টি ও উল্টো পথে গাড়ি চালানোর দায়ে ২টি মামলা হয়েছে।

এসব মামলায় মোট ২৩ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে বলেও জানায় পুলিশ।

সিএমপি ট্রাফিক বিভাগের (উত্তর) ইনর্চাজ সার্জেন্ট জাহিদুর রহমান গনমাধ্যমকে বলেন, প্রথমদিনে আইন লঙ্ঘনের দায়ে আমাদের উত্তর বিভাগে ৩টি মামলা হয়েছে। প্রতি মামলায় ১ হাজার করে তিন মামলায় মোট ৩ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়েছে।

সিএমপি ট্রাফিক বিভাগের (বন্দর) ইনর্চাজ মো. মিজানুর রহমান গনমাধ্যমকে বলেন, নতুন আইনে আজ আমাদের বন্দর ডিভিশনে মোট ১০টি মামলা হয়েছে। এরমধ্যে ৮টি মামলা হয়েছে চালক ও যাত্রীর হেলমেট না থাকায়।

তিনি আরো বলেন, ড্রাইভিং লাইসেন্স না থাকায় প্রতি মামলায় ৫ হাজার করে দুই মামলায় মোট ১০ হাজার টাকা ও বাকি আট মামলাতে ১০ হাজার টাকা জরিমানা করা হয়।

Print Friendly and PDF

———