চট্টগ্রাম, বৃহস্পতিবার, ৪ জুন ২০২০ , ২১শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪২৭ বঙ্গাব্দ

বাঙ্গালহালিয়ায় মানববন্ধন

বখাটে কর্তৃক বিয়ে ভেঙ্গে যাওয়ায় শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

আলমগীর মানিক, রাঙামাটি থেকে প্রকাশ: ৪ নভেম্বর, ২০১৯ ৩:৫৯ : অপরাহ্ণ

রাঙামাটির রাজস্থলী উপজেলার বাঙ্গালহালিয়ায় বখাটে কর্তৃক হয়রানীর শিকার হয়ে নির্ধারিত বিয়ে ভেঙ্গে যাওয়ায় বিষপানে আত্মহত্যা করেছে শামিমা নামের এক শিক্ষার্থী। নিহত শামীমা বাঙ্গালহালিয়া সরকারী কলেজের দ্বাদশ শ্রেণীর ছাত্রী। রোববার রাতে মুঠোফোনের মাধ্যমে শামীমার পূর্ব নির্ধারিত বিয়ে ভেঙ্গে যাওয়ার খবর পেয়ে সে বিষপান করে। এসময় তাকে স্থানীয় স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে গেলে চিকিৎসাধীন অবস্থায় সে রাতেই মারা যায়। সোমবার দুপুরে ময়নাতদন্তের জন্য নিহত শামীমার মরদেহ রাঙামাটি জেনারেল হাসপাতালের মর্গে আনা হয়।

এদিকে শামীমাকে আত্মহত্যায় প্ররোচনাদানকারী বখাটে রানাকে গ্রেফতারের দাবিতে বাঙ্গালহালিয়া বাজারে বিক্ষোভ মিছিল ও মানববন্ধন করেছে তার সহপাঠি শিক্ষার্থী ও শিক্ষকরা। মানববন্ধনে শামীমার কলেজের সহপাঠি ও অভিভাবকরা জানিয়েছেন, শামীমা অপমান সইতে না পেরে রোববার রাতে নিজ বাড়িতে আত্মহত্যার পথ বেছে নেয়। এই ন্যাক্কারজনক নির্মম ঘটনার সাথে জড়িত মূল হোতা বখাটে রানাকে দ্রুত আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানিয়েছেন তারা।

নিহতের স্বজন ও এলাকাবাসীর অভিযোগ, বাঙ্গালহালিয়ার ডাক বাংলা পাড়ার বাসিন্দা শহিদের ছেলে মোটর চালক বখাটে রানা কিছু নোংরা ছবিকে এডিটের মাধ্যমে শামীমার প্রবাসী হবু স্বামীর ইমো নাম্বারে পাঠিয়ে শামীমাকে বিয়ে না করার জন্য হুমকি প্রদান করে। বিষয়টি হবু বর শামীমাকে জানায় এবং ছবিগুলো শামীমার ইমো নাম্বারে প্রেরণ করে। এসময় উভয়ের মাঝে কথাকাটাকাটিও হয়। পরে লোকলজ্জার ভয়ে শামীমা বিষপান করে এবং রাতেই মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়ে। এই ঘটনার পর থেকেই বখাটে রানা পলাতক রয়েছে। এদিকে, বিষয়টি নিয়ে জানতে যোগাযোগ করা হলে চন্দ্রঘোনা থানার অফিসার ইনর্চাজ আশরাফ উদ্দিন বলেন,একজন কলেজ ছাত্রী আত্মহত্যা করেছেন, শুনেছি যদি পরিবারের পক্ষ থেকে মামলা করে তাহলে দোষীদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Print Friendly and PDF

———