চট্টগ্রাম, বুধবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৯ , ২৮শে কার্তিক, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

চন্দনাইশে অটোরিকশা আটকের জের তুলকালাম কান্ড: পুলিশ আহত, ফাঁকা গুলি

প্রকাশ: ১৯ অক্টোবর, ২০১৯ ৯:০৮ : অপরাহ্ণ

সিএনজি চালিত অটোরিকশা আটককে কেন্দ্র করে চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে হাইওয়ে পুলিশ ও অটোরিকশাচালকদের মধ্যে হাতাহাতি, ইটপাটকেল নিক্ষেপ ও ফাঁকা গুলি বর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। এ ঘটনায় ইটের আঘাতে ১ পুলিশ কনস্টেবল আহত হয়েছেন।

চন্দনাইশ উপজেলার গাছবাড়িয়া খানহাট এলাকায় শনিবার (১৯ অক্টোবর) সন্ধ্যা সাড়ে ৬টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

এ ব্যাপারে তদন্ত করা হচ্ছে এবং নিয়মিত মামলার প্রস্তুতি চলছে জানিয়ে দোহাজারী হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আহসান হাবিব বলেন, ‘হাইকোর্টের নির্দেশ রয়েছে মহাসড়কে তিন চাকার কোনো যানবাহন চলতে পারবে না।

আজ শনিবার সন্ধ্যার সময় চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে অবৈধভাবে চলাচলের সময় একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশা আটক করে থানায় নিয়ে আসছিলেন পুলিশ সদস্যরা।

এসময় অটোরিকশাচালকরা খানহাট বাজার এলাকায় একত্রিত হয়ে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে পুলিশের ওপর অতর্কিত হামলা করলে ইটের আঘাতে ১ পুলিশ কনস্টেবল আহত হন এবং পুলিশ ভ্যানটি ক্ষতিগ্রস্ত হয়। আহত কনস্টেবল রেজাউলকে দোহাজারী হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হয়েছে বলে জানান ওসি আহসান হাবিব।

স্থানীয়ভাবে জানা যায়, দোহাজারী হাইওয়ে পুলিশ চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কে চলাচলের সময় খানহাট বাজার এলাকা থেকে একটি সিএনজিচালিত অটোরিকশা আটক করে। এসময় অটোরিকশাচালক পালিয়ে গেলে হাইওয়ে থানার পুলিশ আটককৃত অটোরিকশাটি নিয়ে থানায় আসছিলেন।

পথিমধ্যে গাছবাড়িয়া খানহাট বাজার এলাকায় আসলে বেশ কয়েকজন সিএনজিচালিত অটোরিকশাচালক একত্রিত হয়ে পুলিশ ভ্যানকে লক্ষ্য করে ইটপাটকেল নিক্ষেপ করে।

এতে ইটের আঘাতে রেজাউল করিম (২৬) নামে ১ পুলিশ কনস্টেবলের (পুলিশ ভ্যানের চালক) মাথা ফেটে যায় এবং ইটের আঘাতে পুলিশ ভ্যানের কয়েকটি গ্লাসও ভেঙ্গে যায়।

এসময় পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করতে পুলিশ ২ রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষণ করে। ঘটনার সময় আশেপাশে আতংক ছড়িয়ে পড়ে এবং কিছুক্ষণের জন্য মহাসড়কে যানজটের সৃষ্টি হয়।

ঘটনার পর পর পুলিশ সেলিম উদ্দীন (২২) নামে একজনকে আটক করে। সেলিম উপজেলার নাছির মোহাম্মদপাড়ার বাচা মিয়ার ছেলে।

Print Friendly and PDF

———