চট্টগ্রাম, বুধবার, ২১ আগস্ট ২০১৯ , ৬ই ভাদ্র, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

ঘণ্টায় ৮৫ জন ডেঙ্গু রোগী, একদিনে আক্রান্ত দুই হাজার

ঢাকাটাইমস প্রকাশ: ৫ আগস্ট, ২০১৯ ৬:৫২ : অপরাহ্ণ

স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক স্বপন ডেঙ্গু পরিস্থিতিকে তুলনামূলক ভালো বলার দিনই রোগী ভর্তির নতুন রেকর্ড হলো সারা দেশে।

রবিবার সকাল থেকে সোমবার সকাল আটটা পর্যন্ত সারা দেশে নতুন রোগী ভর্তি হয়েছে দুই হাজার ৫৪ জন। এক দিনে এত বেশি রোগী এর আগে কখনো দেখা যায়নি। এই হিসাবে প্রতি ঘণ্টায় ৮৫ জন মানুষ ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হচ্ছেন। অর্থাৎ প্রতি দুই মিনিটে আক্রান্ত হচ্ছেন তিন জন।

নতুন রোগীদের মধ্যে রাজধানীর বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন এক হাজার ৫৯ জন। আর ঢাকার বাইরে ভর্তি হয়েছেন ৯৯৫ জন।
ডেঙ্গু নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের দৈনিক প্রতিবেদনে সোমবার এ তথ্য জানানো হয়। এতে এখন পর্যন্ত ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে মৃতে্যুর সংখ্যা বলা হয়েছে ১৮ জন।

প্রতিবেদন অনুযায়ী চলতি বছর ২৭ হজার ৪৩৭ জন ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়েছেন। এদের মধ্যে এই মুহূর্তে হাসপাতালে ভর্তি সাত হাজার ৬৫৮ জন, আর চিকিৎসা নিয়ে ঘরে ফিরেছে ১৯ হাজার ৭৬১ জন।

স্বাস্থ্য অধিপ্তরের প্রতিবেদন অনুসারে, ২৪ ঘণ্টায় সবচেয়ে বেশি রোগী ভর্তি হয়েছে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে; ১৮৩ জন। মুগদা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ১১৮ জন, মিটফোর্ড হাসপাতালে ১০২ জন, শহীদ সোহরাওয়ার্দী হাসপাতালে ৯৮ জন এবং ঢাকা শিশু হাসপাতালে ৩৮ জন ভর্তি হয়েছে।

এ ছাড়া বঙ্গবন্ধু মেডিকেলে ৫০ জন, রাজারবাগ পুলিশ হাসপাতালে ১৯ জন, সম্মিলিত সামরিক হাসপাতালে ৩০ জন, কুর্মিটোলা জেনারেল হাসপাতালে ৫০ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হয়েছেন।

ঢাকা শহরের বিভিন্ন বেসরকারি হাসপাতালে নতুনভাবে ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হয়েছেন ৩৯৯ জন রোগী। এদের মধ্যে বাংলাদেশ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ৩৪ জন, ধানমন্ডি ইবনে সিনায় ১৫ জন, স্কয়ার হাসপাতালে ২৪ জন, শমরিতা হাসপাতালে ১১ জন, ল্যাব এইড হাসপাতালে ৯ জন, সেন্ট্রাল হাসপাতালে ২০ জন, গ্রিন লাইফ মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৯ জন, কাকরাইল ইসলামী ব্যাংক সেন্ট্রাল হাসপাতালে ২৮ জন, সিরাজুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২৮ জন, অ্যাপোলো হাসপাতালে ২১ জন, আদ-দ্বীন মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২২ জন, পপুলার মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ২০ জন রোগী ভর্তি হয়েছেন।

ঢাকা ছাড়াও বিভাগের জেলা শহরগুলোতে ২২১ জন, চট্টগ্রাম বিভাগে ১৮০ জন ও খুলনা বিভাগে ১৫০ জন রোগী ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্ত হয়ে ভর্তি হয়েছেন।

রংপুর বিভাগে ৪৭ জন, রাজশাহী বিভাগে ১১২ জন, বরিশাল বিভাগে ৯৯ জন, সিলেট বিভাগে ৩৬ জন রোগী ডেঙ্গেু আক্রান্ত হয়ে বিভিন্ন হাসপাতালে ভর্তি হয়েছেন। ময়মনসিংহ বিভাগে ৬১ জন ডেঙ্গু আক্রান্ত হয়েছে বলে জানানো হয় প্রতিবেদনে।

গত মাসের শুরুর দিতে ডেঙ্গু আক্রান্তের সংখ্যা দিনে দুই থেকে আড়াইশর মতো ছিল। তবে জুলাইয়ের মাঝামাঝি সময়ে দিনে পাঁচশ করে রোগী ভর্তি হতে থাকে দেশের বিভিন্ন হাসপাতালে। প্রথমবারের মতো রোগীর সংখ্যা এক হাজার ছাড়ায় জুলাইয়ের শেষে। এরপর গত ছয় দিন টানা প্রতিদিন নতুন রোগীর সংখ্যা দেড় হাজারের বেশি ছিল।

গত ২৪ ঘণ্টার আগে রোগী ভর্তির সর্বোচ্চ রেকর্ড হয় ৩ থেকে ৪ আগস্ট। এই সময়ে ডেঙ্গু রোগীর ভর্তির সংখ্যা ছিল এক হাজার ৮৭০ জন। আগের দিনও সারা দেশে ভর্তি হয় এক হাজার ৬৪৯ জন রোগী। তার আগের দিন ভর্তি হয় এক হাজার ৬৮৭ জন। তার আগের দিন ছিল এক হাজার ৭১২ জন। তার আগের দুই দিনে রোগীর সংখ্যা ছিল যথাক্রমে এক হাজার ৫৬২ এবং এক হাজার ৫২৫ জন।

ঢাকাটাইমস

Print Friendly and PDF

———