fbpx

চট্টগ্রাম, মঙ্গলবার, ২৩ জুলাই ২০১৯ , ৮ই শ্রাবণ, ১৪২৬ বঙ্গাব্দ

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ লোহাগাড়ার শহিদুল নিহত

আলাউদ্দিন প্রকাশ: ১৬ জুন, ২০১৯ ৪:২৮ : অপরাহ্ণ

টেকনাফে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ লোহাগাড়ার শহিদুল ইসলামসহ ৩ মাদক ব্যবসায়ী নিহত হয়েছেন। নিহত নিহত শহিদুল ইসলাম লিটন (৪২) লোহাগাড়া উপজেলার আমিরাবাদ মাস্টার হাট এলাকার আবুল কাশেমের ছেলে।

শনিবার দিবাগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে উপজেলার হোয়াইক্যং-বাহারছড়া সড়কের পাহাড়ি ঢালা নামক এলাকায় এই বন্দুকযুদ্ধ হয়।

র‍্যাব-১৫ এর টেকনাফ ক্যাম্পের কর্মকর্তা লে. কমান্ডার (বিএন) মির্জা শাহেদ মাহতাব সাংবাদিকদের এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

অপর দুই নিহতরা হলেন, কক্সবাজার পৌরসভার চৌধুরীপাড়ার গবি সোলতানের ছেলে দিল মোহাম্মদ (৪২), একই এলাকার মো. ইউনূছের ছেলে রাশেদুল ইসলাম (২২)।

র‍্যাবের ভাষ্য, এ ঘটনায় র‍্যাবের দুই সদস্য মো. জাহাঙ্গীর ও মো. সোহেল আহত হয়েছেন। ঘটনাস্থল থেকে ১ লাখ ৪০ হাজার পিস ইয়াবা, চারটি দেশীয় অস্ত্র (এলজি) ও ২১টি কার্তুজ উদ্ধার করা হয়েছে।

র‍্যাব-১৫-এর টেকনাফ ক্যাম্পের কর্মকর্তা লে. কমান্ডার (বিএন) মির্জা শাহেদ মাহতাব বলেন, গতকাল রাতে একদল ইয়াবা কারবারি ও অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী টেকনাফের হোয়াইক্যং-বাহারছড়ার পাহাড়ি ঢালা নামক এলাকায় ইয়াবার একটি বড় চালান পাচার করছে বলে তথ্য পাওয়া যায়। এই তথ্যের ভিত্তিতে র‍্যাবের একটি বিশেষ দল ওই এলাকায় অভিযানে যায়। এ সময় র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে সেখানে থাকা অস্ত্রধারীরা গুলি ছুড়তে শুরু করে। র‍্যাবও পাল্টা গুলি ছোড়ে। এতে র‍্যাবের দুই সদস্য আহত হন।

এক পর্যায়ে অস্ত্রধারীরা পিছু হটে। পরে ঘটনাস্থলে গুলিবিদ্ধ অবস্থায় তিনজন ইয়াবা কারবারিকে পাওয়া যায়। তাদের উদ্ধার করে দ্রুত টেকনাফ উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নেয়া হয়। কিন্তু তিনজনকেই মৃত ঘোষণা করেন চিকিৎসক।

টেকনাফ মডেল থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাস বলেন, মরদেহগুলো ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতালের মর্গে পাঠানো হবে। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়া চলছে।

Print Friendly and PDF

———