চট্টগ্রাম, , শুক্রবার, ২২ মার্চ ২০১৯

নির্বাচনি কর্মকর্তাদের নিরপেক্ষ আচরণের আহ্বান

প্রকাশ: ২০১৯-০৩-১৩ ২০:৩২:৪৪ || আপডেট: ২০১৯-০৩-১৩ ২০:৩২:৫৪

পাঁচ ধাপের উপজেলা নির্বাচন অত্যন্ত সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয়ছে। পরবর্তী ধাপের নির্বাচনও যাতে সফল ও সুষ্ঠুভাবে সম্পন্ন হয় সেজন্য নির্বাচনি কর্মকর্তাদের নিরপেক্ষ আচরণের আহ্বান জানান নির্বাচন কমিশনার বেগম কবিতা খানম।

বুধবার (১৩ মার্চ) ৫ম উপজেলা নির্বাচন উপলক্ষে আয়োজিত বিভাগীয় আইনশৃঙ্খলা বিষয়ক মতবিনিময় সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ আহ্বান জানান তিনি। চট্টগ্রাম সার্কিট হাউসের সম্মেলন কক্ষে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

কর্মকর্তাদের উদ্দেশ্য করে কবিতা খানম বলেন, রাষ্ট্র আপনাদের যে দায়িত্ব দিয়েছে সেটি সততার সাথে পালন করবেন। কোন লোভ বা প্রলোভন যাতে আপনাদের সঠিক দায়িত্ব পালনে বাধগ্রস্ত না করে।

আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর উদ্দেশ্যে বেগম কবিতা খানম বলেন, ভোটারের নিরাপত্তা, ভোটাধিকার প্রয়োগসহ তফসিল ঘোষণা পর থেকে ফল ঘোষণা না হওয়া পর্যন্ত পরিস্থিতি স্বাভাবিক রাখা আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর দায়িত্ব। এজন্য কেউ যাতে অবৈধ সুবিধা গ্রহণ করতে না পারে সে ব্যাপারে নজর রাখতে হবে।

তিনি বলেন, “তিন পার্বত্য জেলায় সেনাবাহিনী মোতায়েনের বিষয়ে আমরা কমিশনকে জানিয়েছি। এই ব্যাপারে শিগগিরি পরিপত্র জারি হবে। যেহেতু ১৮ তারিখে (১৮ মার্চ) নির্বাচন হবে, আমাদের হাতে কিন্তু সময় নেই। এ জন্য যত দ্রুত সম্ভব আমরা এই বিষয়ে আমরা সিদ্ধান্ত নিতে যাচ্ছি “

সভায় নির্বাচন কমিশন (ইসি) সচিব হেলালুদ্দীন আহমেদ জানান, কক্সবাজার সদর উপজেলায় ইভিএম পদ্ধতিতে ভোটগ্রহণের ক্ষেত্রেও সেনাসদস্যরা দায়িত্ব পালন করবেন। আজকেই (বুধবার) চিঠি যাচ্ছে। সেখানে প্রত্যেক কেন্দ্রে সেনাবাহিনী থাকবে। নির্বাচন কমিশনেরও প্রচুর সংখ্যক কর্মকর্তা থাকবেন।

তিনি আরও বলেন, চট্টগ্রামের ফটিকছড়ি, লোহাগাড়া, পটিয়া ও বোয়ালখালীতে ভোটগ্রহণের সময় এক প্লাটুন করে অতিরিক্তি বিজিবি মোতায়েন থাকবে।

তফসিল অনুযায়ী, ১৮ মার্চ থেকে ৩১ মার্চের মধ্যে পার্বত্য তিন জেলাসহ চট্টগ্রাম বিভাগের উপজেলাগুলোতে বিভিন্ন ধাপে নির্বাচন হওয়ার কথা রয়েছে।