চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮

চট্টগ্রামে বাতিল হলো যাদের মনোনয়ন

প্রকাশ: ২০১৮-১২-০২ ২৩:৫৯:২২ || আপডেট: ২০১৮-১২-০৩ ০৯:৫৮:৪৫

একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে চট্টগ্রামের ১৬ আসনে ধানের শীষ প্রতীকের এগারোসহ মোট ৪২ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হয়েছে। বাতিলের তালিকায় বিএনপির বেশ কয়েকজন শীর্ষ নেতাও রয়েছেন। যদিও এসব আসনের অধিকাংশতেই বিএনপির বিকল্প প্রার্থী রয়েছে।

অপরদিকে স্বতন্ত্র হিসেবে দুই আওয়ামী লীগ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হলেও চট্টগ্রামে নৌকা প্রতীকের কোনো প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল হয়নি। চট্টগ্রাম বিভাগীয় কমিশনার এবং জেলা প্রশাসক সূত্রে জানা গেছে, ১৬টি সংসদীয় আসনে মোট ১৭৭ প্রার্থী মনোনয়ন জমা দেন। রোববার (২ ডিসেম্বর) যাচাই-বাছাই শেষে ৪২ প্রার্থীর মনোনয়ন বাতিল করেন রিটার্নিং কর্মকর্তা। বাকি ১৩২ প্রার্থীকে বৈধ ঘোষণা করেন। এ ছাড়া তিনজনের মনোনয়ন পুনর্বিবেচনার জন্য রাখা হয়েছে।

ঋণখেলাপী এবং নানা ক্রটির কারণে যাদের মনোনয়ন বাতিল হয়েছে তারা হলেন-

চট্টগ্রাম-১ মিরসরাই আসনে সঠিক ভোটার তালিকা জমা না দেওয়ায় বাদ পড়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী রেজাউল করিম, মোহাম্মদ মোশারফ হোছাইন ও শাহীদুল ইসলাম চৌধুরী। এ ছাড়া উপজেলা চেয়ারম্যান পদ থেকে পদত্যাগ না করায় বিএনপির নুরুল আমিন বাদ পড়েছেন।

চট্টগ্রাম-২ ফটিকছড়ি আসনে ঋণখেলাপি ও দলীয় মনোনয়ন না পাওয়ায় বাদ পড়েছেন বিএনপির গিয়াস উদ্দিন কাদের চৌধুরী ও জামানতের টাকা জমা না দেওয়ায় বাতিল হয় জাকের পার্টির আবদুল হাইয়ের মনোনয়নপত্র।

চট্টগ্রাম-৩ সন্দ্বীপ আসনে বিল খেলাপি হওয়ায় জাসদের মো. আবুল কাসেম ও বিএনপির মোস্তফা কামাল পাশার মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে।

চট্টগ্রাম-৬ রাউজান আসনে সাজাপ্রাপ্ত হওয়ায় মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে বিএনপির সামির কাদের চৌধুরীর।

চট্টগ্রাম-৭ রাঙ্গুনিয়া আসনে ঋণখেলাপি ও দলীয় মনোনয়ন না পাওয়ায় বাদ পড়েছেন বিএনপির গিয়াস উদ্দিন কাদের চৌধুরী। খণখেলাপি হওয়ায় মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে বিএনপির আবু আহমেদ হাসনাত ও বিএনএফ’র মো. আবদুল আলীমের।

চট্টগ্রাম-১২ পটিয়া আসনে খণখেলাপি হওয়ায় বাদ পড়েছেন এলডিপির এম ইয়াকুব আলী, ভোটার তালিকা সঠিক না দেওয়ায় স্বতন্ত্র প্রার্থী মোহাম্মদ আবু তালেব হেলালী।

চট্টগ্রাম-১৩ আনোয়ারা আসনে মনোনয়নপত্র বাতিল হয়েছে বিএনএফের নারায়ণ রক্ষিত ও ভোটার তালিকা সঠিক না দেওয়ায় বাদ পড়েছেন স্বতন্ত্র সৈয়দ জামাল আহমেদ।

চট্টগ্রাম-১৪ চন্দনাইশ আসনে ভোটার তালিকা সঠিক না দেওয়ায় বাদ পড়েছেন স্বতন্ত্র প্রার্থী মো. শাহজাহান, মো. মনিরুল ইসলাম, মোহাম্মদ জসীম উদ্দিন।

চট্টগ্রাম-১৫ সাতকানিয়া আসনে ভোটার তালিকা সঠিক না দেওয়ায় বাদ পড়েছেন স্বতন্ত্রপ্রার্থী মুহাম্মদ জাকের ও আবদুল জব্বার।

চট্টগ্রাম-১৬ বাঁশখালী আসনে উপজেলা চেয়ারম্যান পদ থেকে পদত্যাগ না করায় বাদ পড়েছেন স্বতন্ত্র মোহাম্মদ জহিরুল ইসলাম।