চট্টগ্রাম, , শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮

প্রত্যাবাসনের স্মার্ট কার্ড নিতে রোহিঙ্গাদের অনীহা

প্রকাশ: ২০১৮-১১-২৬ ১৫:৩৩:৪৫ || আপডেট: ২০১৮-১১-২৬ ১৮:৩১:১০

প্রত্যাবাসনের জন্য করা স্মার্ট কার্ড নিতে অনীহা প্রকাশ করছে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া রোহিঙ্গারা। এ কারণে দু’দিন ধরে কক্সবাজারের উখিয়ার রোহিঙ্গা ক্যাম্পের কিছু এলাকায় তারা প্রতীকী অনশন করছে।

জাতিসংঘের শরণার্থী বিষয়ক সংস্থা ইউএনএইচসিআরের পক্ষ থেকে মিয়ানমারে প্রত্যাবাসনের জন্য করা পরিবারভিত্তিক তালিকায় ‘রোহিঙ্গা’ উল্লেখ না করায় রোহিঙ্গারা এ অনশন কর্মসূচি পালন করছে।

স্মার্ট কার্ড না নেয়ার পাশাপাশি ইউএনএইচসিআর’কে কোনো ধরনের সহযোগিতা থেকে বিরত রয়েছে রোহিঙ্গাদের একটি অংশ।

রোহিঙ্গা কমিউনিটির নেতা আরিফ জানান, ‘আমরা শুরু থেকে দাবি করে আসছি যে আমাদেরকে মিয়ানমার সরকারকে রোহিঙ্গা স্বীকৃতি দিতে হবে। একইভাবে রাখাইনে স্বাধীনভাবে চলাচল, নাগরিকত্বের পাশাপাশি সব সুবিধা দিতে হবে। কিন্তু মিয়ানমারে প্রত্যাবাসনের জন্য করা পরিবারভিত্তিক তালিকায় ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি উল্লেখ না থাকায় আমরা বিচলিত হয়ে পড়েছি।’

নাম প্রকাশ না করার শর্তে ইন্টার সেক্টর কো-অর্ডিনেশন গ্রুপ (আইএসসিজি)-র একটি সূত্র জানায়, ‘গতকাল ও আজ উখিয়ার ২১ নাম্বার ক্যাম্প, চাকমারকূলসহ বিভিন্ন ক্যাম্পের কিছু রোহিঙ্গা প্রত্যাবাসনের তালিকায় ‘রোহিঙ্গা’ শব্দটি উল্লেখ না থাকায় স্মার্ট কার্ড না নেয়ার পাশাপাশি প্রতীকী অনশন করছে। ক্যাম্পের মধ্যে দোকান বন্ধ ও ইউএনএইচসিআর’কে অসহযোগিতা করছে।’

তবে এ বিষয়ে ইউএনএইচসিআরের পক্ষ থেকে কোন বক্তব্য পাওয়া যায়নি।

কক্সবাজার শরণার্থী ত্রাণ ও প্রত্যাবাসন কমিশনার (আরআরআরসি) মো. আবুল কালাম জানান, ‘রোহিঙ্গাদের একটি অংশ ক্যাম্পে অনশনের কথা আমি শুনেছি। আমি এখন রোহিঙ্গা ক্যাম্পে যাচ্ছি।’