চট্টগ্রাম, , শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮

চালু হচ্ছে ‘মাদার অব হিউম্যানিটি পদক’

প্রকাশ: ২০১৮-১১-১৯ ১৭:৫৮:০৬ || আপডেট: ২০১৮-১১-২০ ১০:১৯:৩২

পদকজয়ী প্রত্যেককে ১৮ ক্যারেট মানের ২৫ গ্রাম ওজনের স্বর্ণপদক প্রদান করা হবে

২০১৯ সাল থেকে প্রতিবছর জাতীয় সমাজসেবা দিবসে (২ জানুয়ারি) সমাজকল্যাণে গুরুত্বপূর্ণ অবদানের জন্য পাঁচটি ক্ষেত্রে পাঁচজন ব্যক্তি এবং প্রতিষ্ঠানকে ‘মাদার অব হিউম্যানিটি-সমাজকল্যাণ পদক’ প্রদান করা হবে। সোমবার (১৯ নভেম্বর) সচিবালয়ের মন্ত্রিপরিষদ সভাকক্ষে এক বৈঠকে ‘শেখ হাসিনা মাদার অব হিউম্যানিটি-সমাজকল্যাণ পদক নীতিমালা-২০১৮’ -এর অনুমোদন দেওয়া হয়।

মন্ত্রীপরিষদের বৈঠক শেষে এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন মন্ত্রিপরিষদ সচিব মোহাম্মদ শফিউল আলম। তিনি জানান, পদক হিসেবে এই পাঁচ ব্যক্তির প্রত্যেককে ১৮ ক্যারেট মানের ২৫ গ্রাম ওজনের স্বর্ণপদক প্রদান করা হবে। এছাড়াও, এই পদকপ্রাপ্ত প্রতি ব্যক্তি ও প্রতিষ্ঠানকে ২ লাখ টাকা, মাদার অব হিউম্যানিটি পদকের রেপ্লিকা ও সম্মাননা পদক প্রদান করা হবে।

এই পদক প্রদানের জন্য বাছাইয়ের ক্ষেত্রে জেলা ও জাতীয় এই ২ পর্যায়ে কমিটি গঠন করা হবে বলে সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। জেলা পর্যায়ের কমিটির প্রধান হিসেবে দায়িত্বপ্রাপ্ত হবেন সংশ্লিষ্ট জেলার জেলা প্রশাসক এবং জাতীয় পর্যায়ের প্রধান হবেন একজন সিনিয়র মন্ত্রী।

যে পাঁচটি ক্ষেত্রে অবদানের জন্য এই পদক প্রদান করা হবে সেগুলো হলো—

১. বয়স্ক, বিধবা, স্বামী পরিত্যক্তা নারীদের কল্যাণে যারা অবদান রাখবেন, ২. প্রান্তিক ও অনগ্রসর গোষ্ঠীর কল্যাণে যারা অবদান রাখবেন, ৩. প্রতিবন্ধী জনগোষ্ঠীর কল্যাণে যারা অবদান রাখবেন, ৪. সুবিধাবঞ্চিত শিশু, কয়েদি জনগোষ্ঠীর কল্যাণের জন্য যে সব ব্যক্তি বা প্রতিষ্ঠান কাজ করবে তারা এবং ৫. মেধা ও মননের ফলে সমাজে শান্তি ও উন্নয়নে ভূমিকা রাখেন যারা, সেক্ষেত্রে তারা এই পদকের জন্য মনোনীত হবেন।