চট্টগ্রাম, , রোববার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮

রাঙ্গামাটিতে ঘরে ঢুকে জেএসএসকর্মীকে গুলি করে হত্যা

প্রকাশ: ২০১৮-১১-০৯ ১০:২১:৩৫ || আপডেট: ২০১৮-১১-০৯ ১১:৪৮:২০

রাঙ্গামাটির লংগদু উপজেলায় দুর্বৃত্তের গুলিতে বাজা চাকমা (৩৭) নামে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতির (এমএন লারমা) এক সদস্য নিহত হয়েছে।

বৃহস্পতিবার দিবাগত রাত ১টার দিকে সদর ইউনিয়নের বড়াদম বান্ধবতলা এলাকায় এ ঘটনা ঘটে। নিহত বাজা চাকমা উপজেলার দেজরপাড়া এলাকার সুলেন্দ চাকমার ছেলে।

নিহতের চাচাতো ভাই সুচিত্র কার্বারি জানান, বৃহস্পতিবার রাত ১টার দিকে একটি সশস্ত্র গ্রুপের ১০/১৫ জন সদস্য সিভিল পোশাকে ঘরে ঢুকে বাজা চাকমাকে তিন-চারটা গুলি করে ঘটনাস্থল থেকে পালিয়ে যায়। তবে হত্যাকারীদের কাউকে চেনা যায়নি বলে জানান তিনি।

নিহত ব্যক্তিকে নিজেদের সংগঠনের সদস্য দাবি করে হত্যাকাণ্ডের ঘটনায় ইউনাইটেড পিপলস ডেমোক্রেটক ফ্রন্টকে (ইউপিডিএফ) দায়ী করেছে পার্বত্য চট্টগ্রাম জনসংহতি সমিতি (এমএন লারমা)।

সংগঠনটির লংগদু উপজেলার সভাপতি অলঙ্গ চাকমা বলেন, ‘বৃহস্পতিবার দিবাগত রাতে ঘরে ঢুকে আমাদের দলের সদস্য বাজা চাকমাকে গুলি করে হত্যা করেছে ইউপিডিএফের সন্ত্রাসীরা।’

তিনি বলেন, ‘ওই দিন স্থানীয় বড়াদাম বিহারে চীবরদান অনুষ্ঠানে অংশগ্রহণ করতে গিয়েছিল বাজা চাকমা। রাতে তিনি আত্মীয়ের বাসায় ছিলেন। ইউপিডিএফের সন্ত্রাসীরা টার্গেট করে তাকে গুলি করে হত্যা করেছে।’

তবে হত্যাকাণ্ডের অভিযোগ প্রত্যাখান করে ইউপিডিএফের মুখপাত্র নিরন চাকমা বলেন, ‘এই ঘটনার সাথে আমাদের কেউ কোনোভাবেই সম্পৃক্ত নেই। এটা তাদের অভ্যন্তরীণ কোন্দ্বল হতে পারে।’

ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করে লংগদু থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) রঞ্জন কুমার সামন্ত জানান, ‘পুলিশ ঘটনাস্থলের দিকে যাচ্ছে। ঘটনাস্থলে গেলে বিস্তারিত জানা যাবে।’