চট্টগ্রাম, , বুধবার, ১৪ নভেম্বর ২০১৮

সংলাপ ও আন্দোলন একসাথে চলতে পারে না: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশ: ২০১৮-১১-০৩ ২১:০১:৩৫ || আপডেট: ২০১৮-১১-০৪ ০০:৪২:০৭

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলেছেন, বঙ্গবন্ধু ও চার নেতাকে হত্যার মধ্য দিয়ে বিজয় ছিনিয়ে নিয়ে স্বাধীনতা নস্যাতের চেষ্টা হয়েছিল।

শনিবার বিকেলে রাজধানীতে জেল হত্যা দিবস উপলক্ষে রাজধানীতে আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এসব কথা বলেন।

ঐক্যফ্রন্টের নেতাদের প্রতি ইঙ্গিত করে প্রধানমন্ত্রী আরো বলেন, সংলাপ ও আন্দোলন একসাথে চলতে পারে না। এদিকে ৭ নভেম্বরের পর কোনো রাজনৈতিক দলের সঙ্গে আওয়ামী লীগের সংলাপ চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে না বলে জানিয়েছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের।

তিনি বলেছেন, ‘দীর্ঘ সময় সংলাপ চালিয়ে যাওয়া সম্ভব হবে না। কারণ ইতিমধ্যে ৪ নভেম্বর ১৪ দলের সঙ্গে এবং ৫ নভেম্বর জাতীয় পার্টির সঙ্গে আমাদের সংলাপ আয়োজনের সময় ঠিক হয়ে আছে।’

জেল হত্যা দিবস উপলক্ষে শনিবার রাজধানীর ধানমণ্ডির ৩২ নম্বর সড়কে বঙ্গবন্ধু স্মৃতি জাদুঘরে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান এবং চার জাতীয় নেতার প্রতি শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে আলাপকালে এসব কথা বলেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী কাদের।

মন্ত্রী আরো বলেন, ‘কেউ যদি সংলাপে অংশ নেওয়ার পরও জাতীয় নির্বাচনকে সামনে রেখে গোপনে নাশকতার ছক আঁকে তাহলে আমরা সতর্ক করে দিয়ে বলতে চাই যে পরিস্থিতি মোকাবিলায় আমরা সচেতন আছি…আমরা তার সমুচিত জবাব দেব।’

একই অশুভ শক্তি ১৫ আগস্ট, ২১ আগস্ট ও ৩ নভেম্বরের হত্যাকাণ্ড ঘটিয়েছে বলে মন্তব্য করেন ওবায়দুল কাদের।

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা গত বৃহস্পতিবার ড. কামাল হোসেন নেতৃত্বাধীন জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট এবং শুক্রবার অধ্যাপক ডা. এ কিউ এম বদরুদ্দোজা চৌধুরী নেতৃত্বাধীন যুক্তফ্রন্টের সঙ্গে সংলাপে অংশ নিয়েছেন।