চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৮

সংলাপে অংশ নেননি গয়েশ্বর চন্দ্র রায়, বন্ধ মোবাইল

প্রকাশ: ২০১৮-১১-০১ ২২:০৬:১৮ || আপডেট: ২০১৮-১১-০১ ২২:০৬:১৮

বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য গয়েশ্বর চন্দ্র রায় সংলাপে অংশ নেননি। এছাড়া প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে সংলাপে যোগ দিতে গণভবনে দেরিতে পৌঁছান জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের অন্যতম নেতা ও নাগরিক ঐক্যর আহ্বায়ক মাহমুদুর রহমান মান্না।

বৃহস্পতিবার (১ নভেম্বর) সন্ধ্যা ৭টায় সংলাপ শুরু হওয়ার কথা থাকলেও গণভবনে মান্না পৌঁছান ৭টা ৮ মিনিটে। তিনি কেন সংলাপে যাননি তা জানতে মোবাইল ফোনে যোগাযোগ করা হলেও গয়েশ্বর চন্দ্র রায়ের মোবাইল বন্ধ পাওয়া যায়।

সংলাপে প্রধানমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগ সভানেত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বে রয়েছে ক্ষমতাসীন জোটের ২৩ নেতা। অন্যদিকে জাতীয় ঐক্যফ্রন্টে ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বে রয়েছেন ২১ সদস্যের প্রতিনিধিদল।

আজ সন্ধ্যা ৭টার সময় এই সংলাপ শুরুর কথা থাকলেও নেতারা আসতে থাকেন সাড়ে ছয়টার পর থেকেই। সন্ধ্যা ৬টা ২০ মিনিটে প্রথমে বিএনপির স্থায়ী কমিটির সদস্য জমির উদ্দিন সরকার, আব্দুল মঈন খান গণভবনে ঢোকেন।

আওয়ামী লীগের তরফে যারা সংলাপে অংশ নেবেন তারাও একে একে গণভবনে আসতে থাকেন। শুরুর দিকেই মধ্যে কৃষিমন্ত্রী ও আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য মতিয়া চৌধুরী, আওয়ামী লীগের সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য কাজী জাফরুল্লাহ, ১৪ দলীয় জোটের শরিক জাসদের একাংশের সভাপতি মাইনুদ্দিন খান বাদল, প্রধানমন্ত্রীর প্রেস উপদেষ্টা ইকবাল সোবহান চৌধুরীকে গণভবনে ঢুকতে দেখা যায়।

তবে সাতটার আগে ঐক্যফ্রন্টের পক্ষ থেকে দেয়া তালিকার ১৯ জন প্রবেশ করেন গণভবনে। কিন্তু বিএনপির গয়েশ্বর চন্দ্র রায় ও নাগরিক ঐক্যের মাহমুদুর রহমান মান্না ছিলেন না সেখানে। ততক্ষণে শুরু হয় যায় আলোচিত সংলাপের আনুষ্ঠানিকতা। অতিথিদের আমন্ত্রণ জানিয়ে সূচনা বক্তব্য রাখেন শেখ হাসিনা।