চট্টগ্রাম, , সোমবার, ১৯ নভেম্বর ২০১৮

একটি দল এত সংকীর্ণচিত্তের হয় কী করে: কাদের

প্রকাশ: ২০১৮-০৯-১৫ ১৫:৩৩:০৯ || আপডেট: ২০১৮-০৯-১৫ ১৫:৩৩:০৯

জাতিসংঘে গিয়ে সংস্থাটির এক কর্মকর্তার সঙ্গে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীরের বৈঠকের বিষয়টি বিএনপির সংকীর্ণ চিত্তের প্রমাণ হিসেবে দেখছেন ওবায়দুল কাদের। বলেছেন, এর মাধ্যমে বিএনপি জনগণকে অসম্মান করেছে।

শনিবার রাজধানীর ইঞ্জিনিয়ার্স ইনস্টিটিউশন বাংলাদেশ (আইইবি) মিলনায়তনে আওয়ামী লীগের বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি উপ-কমিটির ওয়েবসাইট উদ্বোধন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে এ কথা বলেন আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক।

কাদের বলেছেন, ‘জাতিসংঘে গিয়ে দেশের নামে নালিশ করে দেশের জনগণকে ছোট করা হয়েছে। আমিও নালিশ করছি জনগণের বিবেকের আদালতে। একটি রাজনৈতিক দল কীভাবে এত সংকীর্ণমনা হযয়। একটি রাজনৈতিক দল কীভাবে বিদেশে গিয়ে দেশের নামে নালিশ করে দেশের জনগণকে ছোট করতে পারে?’

গত মঙ্গলবার রাতে বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও নির্বাহী কমিটির সদস্য তাবিথ আউয়াল যুক্তরাষ্ট্রের উদ্দেশে ঢাকা ছাড়েন। তখন বিএনপির পক্ষ থেকে দাবি করা হয়, জাতিসংঘ মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস তাদেরকে আমন্ত্রণ জানিয়েছেন।

বৃহস্পতিবার জাতিসংঘে বৈঠকও করেন ফখরুল। তবে গুতেরেস তখন অবস্থান করছিলেন ঘানায়। এই অবস্থায় বৈঠক হয় সংস্থাটির রাজনীতি বিষয়ক সহকারী মহাসচিব মিরোস্লাভ জেনকার সঙ্গে।

সংস্থাটির মহাসচিব দপ্তরের স্ট্র্যাটেজিক কমিউনিকেশন অফিসার জোয়স লুইস ডায়াজ নিশ্চিত করেছেন যে, গুতেরেস ফখরুলকে আমন্ত্রণ জানাননি। বরং মির্জা ফখরুলের অনুরোধে তার সঙ্গে বৈঠক করেছে জেনকা।

কাদের বলেন, ‘বাংলাদেশের গণতন্ত্র নিয়ে আপনাদের (বিএনপি) কোনো নালিশ থাকলে জনগণের কাছে নালিশ করুন। ভোট দেবে আমাদের জনগণ। বিদেশিরা কি আমাদের ক্ষমতায় বসাবে পারবে? জনগণের প্রতি আস্থা থাকলে বিদেশে গিয়ে দেশের নামে নালিশ করার মত ছোট মানসিকতার পরিচয় বিএনপি দিত না। এত সংকীর্ণ চিত্তের রাজনৈতিক দল কী করে হয়! জাতিসংঘের কাছে নালিশ করে দেশের জনগণকে ছোট করা হয়েছে। আমি জনগণের বিবেকের আদালতে নালিশ করছি।’

দেশের জনগণ না চাইলে আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় থাকবে না জানিয়ে আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক বলেন, ‘এত উন্নয়ন-অর্জন আমরা করেছি, তারপরেও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বলে দিয়েছেন দেশের জনগণ যদি চায় আমরা ক্ষমতায় থাকব। জনগণ যদি না চায় আমরা ক্ষমতায় থাকব না। আওয়ামী লীগের ইতিহাস কখনো ষড়যন্ত্রের নয়। শেখ হাসিনার রাজনৈতিক চিন্তায় নেক্সট জেনারেশন আর বিএনপির রাজনীতির চিন্তায় নেক্সট ইলেকশন। ক্ষমতা ছাড়া কিছুই চিন্তা করে না বিএনপি নামক দলটি। বিএনপি এবং তাদের দোসররা ক্ষমতাকেন্দ্রিক রাজনীতি করে।’

এর আগে, সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে অপপ্রচার রোধ ও আওয়ামী লীগের উন্নয়নমূলক কর্মকাণ্ড তুলে ধরতে দলটির বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক উপকমিটির ওয়েব সাইটের (stsc@albd.com) উদ্বোধন করা হয়।

আওয়ামী লীগ নেতারা বলছেন, বিএনপি-জামায়াত জাতীয় নির্বাচনের আগে অবৈধ পন্থা অবলম্বন আর অপপ্রচার করে সরকারকে বেকায়দায় ফেলার ষড়যন্ত্র করে। এটা প্রতিরোধে সঠিক তথ্য জনগণের কাছে তুলে ধরতেই এই ওয়েবসাইট কাজ করবে। দলের কেন্দ্রীয়, জেলা, উপজেলার বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিষয়ক সম্পাদকদের এই সাইটে যুক্ত করা হয়েছে।