চট্টগ্রাম, , শুক্রবার, ১৭ আগস্ট ২০১৮

সিরিজে সমতায় ফিরল বাংলাদেশ

প্রকাশ: ২০১৮-০৮-০৫ ১০:৪৪:৩২ || আপডেট: ২০১৮-০৮-০৫ ১০:৪৪:৩২

সিরিজের দ্বিতীয় টি-টোয়েন্টি ম্যাচে ওয়েস্ট ইন্ডিজকে ১২ রানে হারিয়েছে বাংলাদেশ। ফলে তিন ম্যাচ সিরিজে ১-১-এ সমতা পেল টাইগাররা।

রোববার (০৫ আগস্ট) বাংলাদেশ সময় ভোর ৬টায় ফ্লোরিডার লডারহিলের সেন্ট্রাল ব্রোওয়ার্ড রিজিওনাল পার্ক স্টেডিয়ামে টস জিতে সফরকারী বাংলাদেশকে ব্যাটিংয়ে পাঠায় স্বাগতিক ওয়েস্ট ইন্ডিজ। টাইগারদের দেয়া ১৭১ রানের জবাবে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৫৯ রান করতে পারে ক্যারিবিয়রা।

টসে হেরে প্রথমে ব্যাটিংয়ে নেমে শুরুতেই লিটন দাস ও মুশফিকুর রহিমের উইকেট হারায় টাইগাররা। দলীয় ৭ রানের মাথায় ব্যক্তিগত ১ রানে লিটন ও দলীয় ২৪ রানের সময় মাত্র ৪ রান করেই সাজঘরে ফেরেন মুশফিক। এরপর দলের ৪৮ রানের মাথায় আউট হন সৌম্য সরকার।

অপরদিকে উইকেটে টিকে থাকেন আরেক ওপেনার তামিম ইকবাল। বড় স্কোর গড়ার প্রত্যাশায় তিনি অধিনায়ক সাকিব আল হাসানকে সঙ্গে নিয়ে ব্যাট করতে থাকেন। দলীয় ১৩৮ রানের সময় ঝড়ো ব্যাটিং করা তামিম আন্দ্রে রাসেলের বলে বিদায় নেন। তবে ৪৪ বলে ৬টি চার ও ৪টি ছক্কায় ৭৪ রানের অসাধারণ ইনিংসটি খেলেন এই বাঁহাতি। অন্যদিকে ৩৮ বলে ৯টি চার ও এক ছয়ে ৬০ রান করে আউট হন সাকিব। সেই সাথে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৫ উইকেটে ১৭১ রান করে বাংলাদেশ।

ওয়েস্ট ইন্ডিজের পক্ষে অ্যাশলি নার্স ও কেমো পল দু’টি করে উইকেট নেন। বাকি ১ টি উইকেট নেন আন্দ্রে রাসেল।

১৭২ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে নিয়মিত বিরতিতে উইকেট হারায় ওয়েস্ট ইন্ডিজ। মোস্তাফিজ, সাকিব ও রুবেল হোসেনের তোপে নির্ধারিত ১০ ওভার শেষে ৪ উইকেট হারিয়ে ৭৬ রান সংগ্রহ করে ক্যারিবীয়রা।

শুরুতেই ওপেনার এভিন লুইসকে এলবির ফাঁদে ফেলেন মোস্তাফিজুর রহমান। পরে ১০ বলে ১৭ রানে ভয়ংকর হতে থাকা আন্দ্রে রাসেলকে মুশফিকের ক্যাচে পরিণত করেন কাটার মাস্টার। নিয়ন্ত্রিত বোলিং করা সাকিব আল হাসান দলীয় ৪৮ রানে মারলন স্যামুয়েলসে ব্যক্তিগত ১০ রানে ফেরান। আর দিনেশ রামদিনকে ৫ রানে প্যাভিলিয়নমুখী করান রুবেল হোসেন।

ক্যারিবিয়ানদের ১১৬ রানে ওপেনার আন্দ্রে ফ্লেচারকে সাকিবে ক্যাচে ফেরান নাজমুল ইসলাম অপু। ৩৮ বলে ৪৩ রান করেন তিনি। পরে অধিনায়ক কার্লোস ব্র্যাথওয়েটকে লিটন দাশের দুর্দান্ত ক্যাচে ব্যক্তিগত ১১ মাঠ ছাড়া করান সাকিব।

ব্যাটে মারমুখি হতে থাকা রোভম্যান পাওয়েলকে মোস্তাফিজ ফেরালে বাংলাদেশ শিবিরে স্বস্তি ফেরে। ৩৪ বলে ৪টি চার ও ২টি ছক্কায় ফ্লেচারের সমান সর্বোচ্চ ৪৩ করেন রোভম্যান। আর শেষ ওভারে অ্যাশলে নার্স ও কিমো পলকে বিদায় করা স্পিনার নাজমুল ইসলাম টাইগারদের জয়ে দারুণ অবদান রাখেন।

বাংলাদেশের পক্ষে মোস্তাফিজ ও নামজুল ৩টি করে উইকেট দখল করেন। সাকিব পান ২টি উইকেট। এছাড়া বাকি উইকেটটি তুলে নেন রুবেল হোসেন।