চট্টগ্রাম, , বৃহস্পতিবার, ১৬ আগস্ট ২০১৮

প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ চায় পায়েলের পরিবার

প্রকাশ: ২০১৮-০৮-০৩ ১৬:০৯:৫৯ || আপডেট: ২০১৮-০৮-০৩ ১৬:১১:০৩

হানিফ পরিবহনের চালক,হেলফার ও সুপারভাইজার দ্বারা নির্মম ভাবে নিহত হওয়া বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষার্থী সাইদুর রহমান পায়েলের পরিবার চায়, প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ।

৪৮ ঘন্টার মধ্যে প্রধানমন্ত্রীর সাক্ষাৎ না পেলে আমরণ অনশন করবে পায়েলের স্বজনেরা। শুক্রবার সকাল সাড়ে ১০ টায় ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের সিটি গেইট এলাকায় মানববন্ধনে দাঁড়িয়ে সন্তান হত্যার বিচার চেয়ে এসব কথা বলেন তারা।

চট্টগ্রামস্থ সন্দ্বীপ এসোসিয়েশানের উদ্যাগে আয়োজিত এই কর্মসূচিতে বিভিন্ন শ্রেনীপেশার হাজারো মানুষ অংশগ্রহন করে। স্থানীয় জনপ্রতিনিধিরাও স্বশরীরে এসে একাত্বতা পোষন করে। মাননবন্ধন শেষে বিক্ষুদ্ধ জনতা এক পর্যায়ে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কও অবরোধ করে রাখে।

দৈনিক সমকালের ব্যুরো প্রধান সারোয়ার সুমনের সঞ্চালনায় মাননবন্ধন কর্মসূচিতে বক্তব্য রাখেন পায়েলের বাবা – গোলাম মাওলা, বড় ভাই গোলাম মোস্তফা, মেঝ মামা – কামরুজ্জামান চৌধুরি টিটু,সেজ মামা – গোলাম রাসেল চৌধুরি,ছোট মামা- ফাহাদ চৌধুরি দিপু, ৯নং উত্তর পাহাড়তলী ওয়ার্ড কাউন্সিলর – জহুরুল আলম জসিম, ১১নং দক্ষিন কাট্টলি ওয়ার্ড কাউন্সিলর – মোর্শেদ আক্তার চৌধুরি, চট্টগ্রাম সাংবাদিক ইউনিয়নের সাবেক সভাপতি – মোস্তাক আহমেদ, সন্দ্বীপ এসোসিয়েশানের সহ-সভাপতি- এস.এম. ইব্রাহীম, সাধারণ সম্পাদক – আবু ইউসুফ রিপন, যুগ্ন-সম্পাদক – জিয়াউল হাসান শিবলু, বাংলাদেশ মানবাধিকার কমিশনের ডেপুটি গভর্নর – আমিনুল ইসলাম বাবু, চট্টগ্রাম চেম্বার পরিচালক – সারওয়ার হাসান জামিল, চট্টগ্রাম উত্তর জেলা মহিলা আওয়ামীলীগের সহ-সভাপতি – রুমানা নাসরিন রুমু, উত্তর জেলা ছাত্রলীগের সাবেক সভাপতি – রাজিবুল আহসান সুমন, সাবেক সহ-সভাপতি – সালাউদ্দীন বাবু, মহানগর যুবলীগের সদস্য – বেলাল উদ্দিন জুয়েল, কেএসআরএমের সিনিয়র কর্মকর্তা ছুপিয়ান সোহাগ প্রমুখ। কর্মসূচিতে স্থানীয় এলাকাবাসী, পায়েলের স্কুলের সহপাঠী ও বন্ধুরা অংশগ্রহণ করে।

এসময় পায়েলের বাবা গোলাম মাওলা বলেন,’ প্রধানমন্ত্রীও স্বজন হারিয়েছেন।তিনি স্বজন হারানোর বেদনা বোঝেন। আমাদের কষ্টের কথা জানাতে চাই উনাকে। আশাকরি প্রধানমন্ত্রীর দেখা পাবো আমরা। দেখা না পেলে সন্তান হত্যার দ্রুত বিচার পেতে যাবো আমরন অনশনে। ছেলের সাথে কবরে যাবো আমরাও।’

এদিকে নিহত পায়েলের পরিবারকে সান্তনা দিতে মানববন্ধন শেষে তাদের হালিশহরের বাসায় অাসে মহানগর যুবলীগের যুগ্ম আহবায়ক ফরিদ মাহমুদ। এর আগের দিন রাতে বাসায় এসে সমবেদনা জানান স্থানীয় এমপি ডাঃ আফসারুল আমিন।