চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ২০ নভেম্বর ২০১৮

চট্টগ্রামে অবৈধ হাসপাতালের কারণে মৃত্যুঝুঁকি কমার বদলে বাড়ছে

প্রকাশ: ২০১৮-০৭-০৭ ১৯:২৯:৪৬ || আপডেট: ২০১৮-০৭-০৭ ২২:৪২:০৪

চট্টগ্রামে কয়েকশ ক্লিনিক ও বেসরকারি হাসপাতালে চলছে রমরমা চিকিৎসা বাণিজ্য। এসব হাসপাতালে অধিকাংশের নেই পরিবেশ অধিদপ্তরের ছাড়পত্র কিংবা স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের অনুমোদন।

ব্যাঙের ছাতার মতো গড়ে ওঠা এসব হাসপাতালে চিকিৎসার বদলে হয়রানি ও দুর্ভোগের শিকার হওয়ার অভিযোগ রোগী ও স্বজনদের। তবে জেলার পরিবেশ ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তর বলছে, শিগগিরই এসব অবৈধ প্রতিষ্ঠানগুলো চিহ্নিত করে কঠোর ব্যবস্থা নেয়া হবে।

চট্টগ্রামে অবৈধভাবে গড়ে উঠেছে কয়েক শতাধিক বেসরকারি হাসপাতাল ও ডায়গণস্টিক সেন্টার। পরিবেশ ও স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নিয়ম-নীতির তোয়াক্কা না করেই চলছে এসব হাসপাতালের কার্যক্রম। এতে মৃত্যুঝুঁকি কমার বদলে বাড়ছে মৃত্যুর হার।

এসব হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে এসে হয়রানি আর দুর্ভোগের কথা জানান রোগী ও স্বজনরা।

এই দুরাবস্থা থেকে মুক্তি পেতে কঠোর পদক্ষেপ নেয়ার আহ্বান জানান সংশ্লিষ্টরা।

জেলার পরিবেশ অধিদপ্তরের কর্মকর্তা জানান, অবৈধ কিছু হাসপাতালে নোটিশ পাঠানো হয়েছে। শিগগিরিই তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নেয়া হবে।

চট্টগ্রামের বেসরকারি হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ডায়গণস্টিক সেন্টার সঠিক সংখ্যা জানাতে পারেনি চট্টগ্রাম সিভিল সার্জন ডা. আজিজুর রহমান সিদ্দিকী।

তবে তিনি সিটিজি টাইমসকেবলেন, চট্টগ্রামে পাঁচ শতাধিক বেসরকারি হাসপাতাল, ক্লিনিক ও ডায়গণস্টিক সেন্টারের লাইসেন্স আছে। অবৈধ প্রতিষ্ঠান গুলোকে আইনের আওতায় আনার প্রক্রিয়া চলছে।