চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ১১ ডিসেম্বর ২০১৮

মোটেল থেকে গ্রেপ্তার জামায়াত-শিবিরকর্মীদের ৭ জন রিমান্ডে

প্রকাশ: ২০১৮-০৬-২৮ ১৯:৫৩:৪১ || আপডেট: ২০১৮-০৬-২৯ ০৮:৫৮:৪১

চট্টগ্রামের নগরের স্টেশন রোডে পর্যটন কর্পোরেশন পরিচালিত মোটেল সৈকত থেকে গ্রেফতার জামায়াত-শিবিরের সাত নেতাকর্মীকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য দুই দিনের রিমান্ডে মঞ্জুর করেছেন চট্টগ্রামের একটি আদালত। বৃহস্পতিবার চট্টগ্রামের অতিরিক্ত মহানগর হাকিম মহিউদ্দিন মুরাদের আদালত পুলিশের রিমান্ড আবেদন মঞ্জুর করেন। চট্টগ্রাম নগর পুলিশের সহকারি কমিশনার (প্রসিকিউশন) কাজী শাহাবুদ্দিন আহমেদ এই তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

পুলিশের ওই কর্মকর্তা বলেন, নগরের স্টেশন রোডে গোপন বৈঠক থেকে গ্রেফতার করা জামায়াত-শিবিরের ২১৪ নেতাকর্মীর মধ্যে ১৫ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য পুলিশ প্রতিজনের ১০ দিন করে রিমান্ড চেয়েছে। তবে আদালত শুনানী শেষে দুই দিন করে তালিকার প্রথম ৭ জনকে জিজ্ঞাসাবাদ করার জন্য অনুমতি দিয়েছে।

রিমান্ডে নেয়া জামায়াত-শিবিরের নেতা-কর্মীদের মধ্যে রয়েছে- চট্টগ্রাম মহানগর জামায়াতের সহকারী সেক্রেটারী ও শিবিরের সাবেক কেন্দ্রীয় সভাপতি আ জ ম ওবায়দুল্লাহ (৫৫), জামায়াত নেতা হাবিবুর রহমান (৫৫), রফিকুল হায়দার (৫৫), হোসনে মুরাদ তারিফ (২৮), ছাত্রশিবির মহানগর দক্ষিণের সভাপতি রফিকুল হাসান (২৮), সেক্রেটারি ইমরানুল হক (২৯), শিবির নেতা গাজী সাখাওয়াত হোসেন ওরফে হাসনাত (২৭)।

এর আগে গত শনিবার সন্ধ্যার পর চট্টগ্রাম মহানগর শিবির পরিচালিত পারাবার শিল্পীগোষ্ঠি নামক একটি সংগঠনের ঈদ পূর্ণমিলনী ও সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান চলাকালে মোটেল সৈকত থেকে ২৯০ জনকে আটক করে। পরে যাচাই বাচাই করে ২১৪ জনকে আসামি করে রোববার সিএমপি কোতোয়ালী থানার একটি মামলা করেন উপ পরিদর্শক গোলাম ফারুক ভুঁইয়া। ওই মামলায় নাশকতা ও সরকার উৎখাতে গোপন বৈঠকের অভিযোগ আনা হয়। পরে আদালতের মাধ্যমে ২১৪ জনকে কারাগারে প্রেরণ করা হয়।