চট্টগ্রাম, , শনিবার, ১৫ ডিসেম্বর ২০১৮

হালদা নদী বাঁচাতে মানববন্ধন

প্রকাশ: ২০১৮-০৬-২৩ ২১:০২:০২ || আপডেট: ২০১৮-০৬-২৩ ২১:২৬:০৫

বিপর্যস্ত হালদা নদীকে দূষণের কবল থেকে বাঁচানোর দাবিতে মানববন্ধন করেছে চট্টগ্রামের সচেতন মহল ও হালদাপারের অধিবাসীরা। শনিবার বিকেলে জেলার হাটহাজারীর মদুনাঘাট এলাকায় এ মানববন্ধন অনুষ্ঠিত হয়েছে।

এতে হাটহাজারী ও রাউজান উপজেলার বিভিন্ন ইউনিয়নের হাজার হাজার মানুষ অংশ নেন। এ সময় সংহতি প্রকাশ করে সাথে ছিল পরিবেশবাদী সংগঠন হালদা রক্ষা কমিটি ও বাংলাদেশ পরিবেশ আন্দোলন (বাপা)।

মানববন্ধনে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রাণিবিদ্যা বিভাগের অধ্যাপক ও হালদা গবেষক ড. মনজুরুল কিবরীয়া বলেন, চট্টগ্রাম মহানগরের বায়োজিদ, কুলগাঁও থেকে নন্দীর হাট পর্যন্ত সব কারখানার বর্জ্য গিয়ে পড়ছে হালদা নদীর বিভিন্ন শাখা খালে। আর ওসব খাল বেয়ে বর্জ্য গিয়ে পড়ছে সরাসরি হালদা নদীতে। ফলে দিন দিন দূষিত হচ্ছে হালদার পানি। নষ্ট হচ্ছে জীববৈচিত্র। মরছে মাছ ও জলজ প্রাণী।

এই হালদা গবেষক বলেন, হালদাকে বাঁচাতে অবিলম্বে নদীর শাখা খালে বর্জ্য ফেলা বন্ধ করতে হবে। আর না হয় হালদা নদীকে রক্ষা করা যাবে না।

মানববন্ধনে আরো বক্তব্য রাখেন, চট্টগ্রাম উন্নয়ন কর্তৃপক্ষের (সিডিএ) বোর্ড সদস্য জসিম উদ্দিন শাহ।

তিনি বলেন, আমরা শিল্প প্রতিষ্ঠানের বিরুদ্ধে নই, কিন্তু শিল্পবর্জ্যের বিরুদ্ধে। যারা দূষিত বর্জ্য লোকালয়ে ফেলছে তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা নিতে হবে।

মানববন্ধনে আরও বক্তব্য রাখেন, শিকারপুর ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আবু বক্কর, চট্টগ্রাম প্রেস ক্লাবের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক চৌধুরী ফরিদ, হালদা উপকূলের অধিবাসী রাশেদুল আলম ও শাহাবুদ্দিন আরিফসহ আরো অনেকে।

এ সময় বক্তারা আরও বলেন, হালদার মতো নদী বিশ্বে বিরল। কিন্তু আমাদের অবহেলায় নদীটি মরতে বসেছে। দ্রুত এই নদীকে বাঁচানোর উদ্যোগ না নিলে জেলা প্রশাসনকে স্মারকলিপি এবং পরিবেশ অধিদফতর ও দুষণের জন্য দায়ী শিল্প প্রতিষ্ঠান ঘেরাও কর্মসূচি ঘোষণা করা হবে।