চট্টগ্রাম, , বুধবার, ১২ ডিসেম্বর ২০১৮

নাজিরহাটে কাজ শেষ হতেই চার লেন সড়কে ফাটল, ঝুঁকিতে সেতু

প্রকাশ: ২০১৮-০৬-১২ ২০:০৬:৫১ || আপডেট: ২০১৮-০৬-১৩ ১১:৪৫:৩৯

চট্টগ্রামের নাজিরহাট-মাইজভান্ডার দরবার শরীফের বাস্তবায়নাধীন চার লেন সড়কের কিছু অংশ ধসে পড়েছে। কাজ শেষ হতে না হতেই সড়ক ধসে পড়ায় মাইজভান্ডার দরবার থেকে আসা-যাওয়ার সেতুটিও এখন হুমকীর মুখে। দ্রুত ব্যবস্থা না নিলে সড়কের সঙ্গে সেতুরও বড় কোনো ক্ষতির আশঙ্কা করছেন স্থানীয়রা।

স্থানীয়রা জানান, সড়কে ফাটল সৃষ্টির পর সড়ক ও জনপদ বিভাগের পক্ষ থেকে ব্যবস্থা নেয়া হলেও ধস ঠেকানো সম্ভব হয়নি। এখন সকড়টির ধ্স ঠেকাতে জরুরি ভিত্তিতে উদ্যোগ না নিলে সেতুটিও ধসে পড়ার শঙ্কা রয়েছে।

এলাকাবাসীর অভিযোগ, সড়ক ও জনপদ বিভাগের সংশ্লিষ্ট কর্মকর্তা এবং ঠিকাদারের দুর্নীতির কারণে প্রকল্পের কাজ শেষ হতে না হতেই সড়কে ফাটল ধরেছে। প্রকল্প খাতে বরাদ্দকৃত টাকার ৬০ ভাগেরও কম ব্যয় করে বাকি টাকা সংশ্লিষ্টরা আত্মসাৎ করেছেন।

সড়ক ও জনপদ (সওজ) সূত্রে জানা যায়, সড়কটি প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার একটি বিশেষ প্রকল্প। প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সম্প্রতি অনুষ্ঠিত পটিয়ার এক জনসভায় অন্যান্য প্রকল্পের সাথে এ সড়কটিও আনুষ্ঠানিক উদ্বোধন করেন। প্রকল্প বাস্তবায়নে বিভিন্ন মেয়াদে ৪০ কোটি টাকা বরাদ্দ দেয়া হয়েছে। চার লেন বিশিষ্ট ৪ কিলোমিটার দীর্ঘ এ সড়কে রয়েছে একটি বক্স কালভার্ট, চারটি বড় আকৃতির সেতু, ঝুঁকিপূর্ণস্থানে গার্ডওয়াল নির্মাণ এবং প্রয়োজনীয় ড্রেনেজ ব্যবস্থা।

ঠিকাদার মো. মহসিন বলেন, সড়কের বিভিন্ন উন্নয়ন কাজ সম্পাদন করতে দু’বছরের অধিক সময় লেগেছে। অ্যাপ্রোস সড়কে কাজ করতে গিয়ে এ ধরনের ধসের ঘটনা ঘটে। ধসে যাওয়া অ্যাপ্রোচ সড়কটি দ্রুত মেরামত করা হবে। এছাড়া প্রকল্পের কাজ সম্পাদন করার পর দু’বছরে মধ্যে মেরামত করার নিয়ম রয়েছে।