চট্টগ্রাম, , সোমবার, ২০ আগস্ট ২০১৮

সন্ত্রাসী কাজের জন্য এই ভূখণ্ড নয়: প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশ: ২০১৮-০৩-২৮ ২৩:০৩:৪০ || আপডেট: ২০১৮-০৩-২৯ ১৩:২০:৫৬

প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সন্ত্রাস ও জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে তার সরকারের ‘জিরো টলারেন্স’ নীতির কথা পুনরুল্লেখ করে বলেছেন, এই ভূখণ্ড কোনোভাবে সন্ত্রাসী কোনো কর্মকাণ্ডে ব্যবহার করতে দেয়া হবে না। উন্নত সমৃদ্ধ অঞ্চল প্রতিষ্ঠায় এতদঞ্চলের সবধরনের সন্ত্রাস সমূলে নির্মূলের আহ্বান জানিয়েছেন তিনি।

বুধবার রাতে বিমসটেক (বিআইএমএসটিইসি) রাষ্ট্রগুলোর ন্যাশনাল সিকিউরিটি চিফদের সঙ্গে তার সরকারি বাসভবন গণভবনে সৌজন্য সাক্ষাতে প্রধানমন্ত্রী এসব কথা বলেন।

বৈঠকের পরে প্রধানমন্ত্রীর প্রেস সচিব ইহসানুল করিম সাংবাদিকদের ব্রিফ করেন।

বে অব বেঙ্গল ইনিশিয়েটিভ ফর মাল্টি সেক্টোরাল টেকনিক্যাল অ্যান্ড ইকোনমিক কোঅপারেশন (বিমসটেক)-এর জাতীয় নিরাপত্তা প্রধানেরা সহযোগী সাতটি রাষ্ট্রের নিরাপত্তা সহযোগিতার বিষয়ে আলোচনা করতে বর্তমানে ঢাকায় অবস্থান করছেন।

এ ধরনের এটি দ্বিতীয় বৈঠক যেটি আজ রাজধানীর রাষ্ট্রীয় অতিথি ভবন পদ্মায় অনুষ্ঠিত হয়েছে। প্রথম বৈঠকটি এক বছর আগে নয়া দিল্লিতে অনুষ্ঠিত হয়।

বিমসটেকভুক্ত দেশগুলো এ অঞ্চলের সন্ত্রাস উচ্ছেদে পারস্পরিক সহযোগিতাকে আরও জোরদার করবে বলে আশাবাদ প্রকাশ করেন প্রধানমন্ত্রী। তিনি বলেন, মাদকাসক্তি, মানব পাচার, সাইবার অপরাধ, সমুদ্রসীমাসংক্রান্ত হুমকি এবং জলবায়ু পরিবর্তনের কারণে সমুদ্রপৃষ্ঠের উচ্চতা বৃদ্ধি এ অঞ্চলের সকল দেশগুলোর জন্য একই ধরনের চ্যালেঞ্জ। এই চ্যালেঞ্জ মোকাবেলার পদ্ধতি আমাদের উদ্ভাবন করে সমন্বিতভাবে এর সমাধানে আমাদের সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে।

প্রধানমন্ত্রী এ সময় সন্ত্রাস এবং জঙ্গিবাদ প্রশ্নে তার সরকারের জিরো টলারোন্স নীতির পুনরোল্লেখ করেন। তিনি বলেন, আমরা সন্ত্রাস এবং উগ্র চরমপন্থার বিরুদ্ধে তরুণ সম্প্রদায়, পরিবার-পরিজন এবং শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলোকে নিয়ে ব্যাপক জনসচেতনতামূলক পদক্ষেপ নিয়েছি।

প্রধানমন্ত্রী এ সময় বাংলাদেশের ভূখণ্ডকে কোনোভাবেই সন্ত্রাসী কর্মকাণ্ডের জন্য কাউকেই ব্যবহার করতে না দেয়ায় তার সরকারের দৃঢ় অবস্থানও পুনর্ব্যক্ত করেন।

দারিদ্র্যই এই অঞ্চলের উন্নয়নের সাধারণ শত্রু আখ্যায়িত করে প্রধানমন্ত্রী এই দারিদ্র্য বিমোচনে সবার সমন্বিত প্রয়াস প্রত্যাশা করেন। প্রতিবেশী দেশগুলোর সঙ্গে সমস্যা দ্বিপাক্ষিক আলাপ-আলোচনার মাধ্যমে সমাধানে গুরুত্বারোপ করে প্রধানমন্ত্রী বলেন, যদি তা সম্ভব না হয় তাহলে বহুপাক্ষিকভাবেও এগুলোর সমাধান হতে পারে।