চট্টগ্রাম, , শনিবার, ১৮ আগস্ট ২০১৮

হাসিনা-কুয়াং বৈঠক, ৩ সমঝোতা সই

প্রকাশ: ২০১৮-০৩-০৫ ১২:৪৭:৫৫ || আপডেট: ২০১৮-০৩-০৫ ১৫:৪৫:১৭

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সঙ্গে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক করেছেন সফররত ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কুয়াং। এর আগে ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট সকাল ১০টায় ঢাকায় প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ে পৌঁছালে শেখ হাসিনা তাকে ফুল দিয়ে স্বাগত জানান।

সোমবার সকালে তেজগাঁওয়ের প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ে এ বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। মৎস্য ও প্রাণি সম্পদমন্ত্রী নারায়ণ চন্দ্র চন্দ এবং ভিয়েতনামের কৃষি ও গ্রামীণ উন্নয়নমন্ত্রী নাগুয়েন জুয়ান চিওং নিজ নিজ দেশের পক্ষে এই সমঝোতা স্মারকে স্বাক্ষর করেন। খবর বাসস

দু’নেতা প্রথমে একান্ত বৈঠকে মিলিত হন। পরে বাংলাদেশ ও ভিয়েতনামের মধ্যে দ্বিপক্ষীয় বৈঠক হয়।এই বৈঠক শেষে দু’নেতার উপস্থিতিতে প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের করবী হলে মৎস্য ও প্রাণিসম্পদ খাত, যন্ত্র প্রকৌশল খাতে সহযোগিতা এবং সাংস্কৃতিক বিনিময় সংক্রান্ত তিনটি সমঝোতা স্মারক সই হয়।

এ সময় বাংলাদেশের শিল্প মন্ত্রণালয়ের সচিব মোহাম্মদ আবদুল্লাহ, সংস্কৃতি মন্ত্রণালয়ের সচিব ইব্রাহিম হোসেন, ভিয়েতনামের শিল্প ও বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের ভাইস মন্ত্রী কো কোয়াক হাং এবং সংস্কৃতি, ক্রীড়া ও পর্যটন মন্ত্রণালয়ের উপ-মন্ত্রী ডাং থি বিচ লিয়েন উপস্থিত ছিলেন।

প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়ের এক মুখপাত্র জানান, প্রথমে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে একান্ত বৈঠক করেন ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কুয়াং। পরে উভয় দেশের কর্মকর্তারা দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে মিলিত হন। পরে তারা বৈঠকে মিলিত হন। সেখানে বাংলাদেশ প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন শেখ হাসিনা। আর ভিয়েতনামের প্রতিনিধি দলের নেতৃত্ব দেন প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কুয়াং।

রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের আমন্ত্রণে তিন দিনের সরকারি সফরে গত রবিবার ঢাকায় পৌঁছান ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট ত্রান দাই কুয়াং।

গত ১৪ বছরে এটাই ভিয়েতনামের কোনো রাষ্ট্রপ্রধানের প্রথম বাংলাদেশ সফর। ত্রান দাই কুয়াংয়ের স্ত্রী গুয়েন থি হিয়েনও এই সফরে তার সঙ্গে আছেন।

সফরকালে সোমবার সকালে সাভারে গিয়ে জাতীয় স্মৃতিসৌধে ১৯৭১ সালে স্বাধীনতাযুদ্ধের শহীদদের প্রতি শ্রদ্ধা জানান ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট। পরে ধানমন্ডিতে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের প্রতিকৃতিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন তিনি।

সন্ধ্যা সাড়ে সাতটায় ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি মো. আবদুল হামিদের সঙ্গে বৈঠক করবেন। এরপর সেখানে তিনি একটি সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান উপভোগ করবেন।

এরপর আগামীকাল মঙ্গলবার সকাল নয়টায় ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্ট বাংলাদেশ-ভিয়েতনাম চেম্বার অব কমার্স অ্যান্ড ইন্ডাস্ট্রিজ প্রধানের সঙ্গে একটি সৌজন্য সাক্ষাৎ করবেন।

তিনি ভিয়েতনাম-বাংলাদেশ বিজনেস ফোরামের এক বৈঠকে যোগ দেবেন এবং পরে ‘ভিয়েতনাম কালচারাল ডেজ ইন বাংলাদেশ’র উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে যোগ দিবেন।

সফর শেষে ,মঙ্গলবারই ভিয়েতনামের প্রেসিডেন্টের ঢাকা ছেড়ে যাওয়ার কথা রয়েছে। হযরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে তাকে বিদায় জানাবেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী আবুল হাসান মাহমুদ আলী।