চট্টগ্রাম, , সোমবার, ১০ ডিসেম্বর ২০১৮

চবিতে সাড়ে তিন লাখ টাকায় ভর্তি: অতঃপর প্রতারিত! ক্লাস করতে এসে ধরা

প্রকাশ: ২০১৮-০১-২৯ ২৩:১০:২৯ || আপডেট: ২০১৮-০১-৩০ ১৩:১৯:২৮

চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের মার্কেটিং বিভাগে ক্লাস করতে আসা জাহেদুল ইসলাম নামের এক শিক্ষার্থীর ভর্তির কাগজপত্র যাচাইয়ের পর তা জাল প্রমাণ হওয়ায় তাকে পুলিশে দেওয়া হয়েছে। আটক জাহেদুল ইসলাম সাতকানিয়া উপজেলার পশ্চিম ডেমশা এলাকার বাসিন্দা।

সোমবার এ ঘটনা ঘটে।

জাহেদুলকে হাটহাজারী থানায় সোপর্দ করা হয়েছে জানিয়ে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ের সহকারী প্রক্টর লিটন মিত্র বলেন, “জালিয়াতির ঘটনায় জুলকার নাঈম ও সাদ্দাম হোসেন নামের দুইজনের কথা বলেছে জাহেদুল। আমরা তদন্ত করে দেখছি।

হাটহাজারী থানার ওসি বেলাল উদ্দিন জাহাঙ্গীর জানান, বিশ্ববিদ্যালয়ের পক্ষ থেকে একজনকে আটক করে দেয়া হয়েছে। যাচাই-বাছাই চলছে। তদন্ত করে পরবর্তী ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

 সুত্র জানায়, জাহেদুল ইসলাম মার্কেটিং বিভাগে প্রথম বর্ষের ক্লাস করতে আসার পর সেখানে শিক্ষার্থীদের তালিকায় তার নাম খুঁজে পাওয়া যায়নি।পরে বিভাগীয় প্রধান তার ভর্তির টাকা জমার রশিদ, ডিন অফিস থেকে দেওয়া ভর্তির কাগজপত্র পরীক্ষা করে দেখেন সেগুলো জাল। জিজ্ঞাসাবাদে জাহেদুল স্বীকার করেছে ভর্তি পরীক্ষার প্রকাশিত ফলে সে অপেক্ষমান তালিকায় ছিল। পরে ভর্তির জন্য সে একটি চক্রের সাথে যোগাযোগ করে।তারা সাড়ে তিন লাখ টাকার বিনিময়ে তাকে ভর্তি করিয়ে দেওয়ার আশ্বাস দেয়। এ বাবদে সে কিছু টাকা পরিশোধ করলে ওই চক্রের লোকেরা তাকে এসব জাল রশিদ ও কাগজপত্র দেয়।