চট্টগ্রাম, , শুক্রবার, ১৬ নভেম্বর ২০১৮

প্রাকৃতিক সৌর্ন্দয্যময় রাঙামাটির পর্যটন শিল্পের বিকাশে নানামুখী পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে জেলা প্রশাসন

প্রকাশ: ২০১৭-১০-২৩ ১৭:৩৫:২১ || আপডেট: ২০১৭-১০-২৩ ১৭:৩৫:২১

আলমগীর মানিক 
রাঙামাটি থেকে

পর্যটক বান্ধব রাঙামাটি গড়ে তোলা ও প্রাকৃতিক সৌর্ন্দয্যময় রাঙামাটির পর্যটন শিল্পের বিকাশে নানামুখি পরিকল্পনা গ্রহণ করেছে জেলা প্রশাসন। আগামী দুই বছরের মধ্যে এই সকল পরিকল্পনা বাস্তবায়ন করা হবে। পরিকল্পনা সমুহ বাস্তবায়নে সরকারি বিভিন্ন বিভাগসহ বেসরকারি সংস্থা ও সুশীল সমাজের সহযোগিতা কামনা করেছেন রাঙামাটির জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ মানজারুল মান্নান।

সোমবার দুপুরে নিজ কার্যালয়ে আয়োজিত জেলা ব্যান্ডিং, কিশোর বাতায়ন প্রতিযোগিতা এবং হিউম্যান ডেভেলপম্যান্ট, মিডিয়ার অনুষ্ঠান উদ্ভাবকের খোঁজে বিষয়ক প্রেস বিফ্রিং অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক বক্তব্য রাখেন।

এসময় রাঙামাটির মৎস্য উন্নয়ন কর্পোরেশন বিএফডিসি’র ব্যবস্থাপক নৌ-বাহিনীর কমান্ডার মোঃ আসাদুজ্জামান-বিএন, সিভিল সার্জন ডা: শহিদ তালুকদার, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) এসএম শফি কামাল, রাঙামাটির অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাফিউল সারোয়ারসহ বিভিন্ন সরকারি প্রতিষ্ঠান প্রধান ও মনোনিত প্রতিনিধি, সুশীল সমাজ ও গণমাধ্যম ব্যক্তিত্বগণ উপস্থিত ছিলেন।

সভায় জানানো হয়, আগামী কিছুদিনের মধ্যেই রাঙামাটির সুশীল সমাজের প্রতিনিধিদের সাথে নিয়ে প্রাথমিক পর্যায়ে পুরো শহরে সচেতনামূলক পরিচ্ছন্ন অভিযান পরিচালনা করবে রাঙামাটি জেলা প্রশাসন। এছাড়াও রাঙামাটির কাপ্তাই হ্রদের পানি দূষণরোধেও দৃশ্যমান কাজ শুরু করা হবে খুব শীঘ্রই। অপরদিকে রাঙামাটি জেলা প্রশাসনের পক্ষ থেকে পরিচালিত হওয়া ফেসবুক পেজের মাধ্যমে উদ্ভাবন কর্ম তুলে ধরার আহবান জানিয়ে জেলা প্রশাসক বলেন, আমরা চাই আমাদের রাঙামাটি জেলাকে ব্র্যান্ডিং করে বিশ্বের দরবারে তুলে ধরতে। এই লক্ষ্যে অত্রাঞ্চলে বসবাসরতদের কেউ যদি ইনোভেশন কোনো কাজ করতে পারে বা করতে আগ্রহী হয়, তাহলে ফেসবুজ পেজের মাধ্যমে আমাদের সাথে যোগাযোগ করলে আমরা তাকে সুযোগ করে দিবো।