চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ১৩ নভেম্বর ২০১৮

এসকে সিনহার সঙ্গে আইনমন্ত্রীর ৩৫ মিনিট

প্রকাশ: ২০১৭-১০-০৫ ১৯:০৩:১৫ || আপডেট: ২০১৭-১০-০৫ ১৯:০৩:১৫

ছুটি নিয়ে আলাচনা-সমালোচনার মধ্যেই প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার সঙ্গে সাক্ষাৎ করেছেন আইনমন্ত্রী আনিসুল হক। বৃহস্পতিবার বিকেলে প্রধান বিচারপতির হেয়ার রোডের বাসায় এই সাক্ষাৎ অনুষ্ঠিত হয়। বিকেল চারটা পাঁচ মিনিটের দিকে আইনমন্ত্রী হেয়ার রোডে আসেন। এরপর প্রধান বিচারপতির বাসভবনে তার সঙ্গে দেখা করে তিনি চারটা ৪০ মিনিটের দিকে বের হয়ে যান।

আইনমন্ত্রী তার গাড়িতে ফিরে যাওয়ার সময় সাংবাদিকরা ধরলেও তিনি কোনো কথা বলেননি।

প্রধান বিচারপতির সঙ্গে দেখা করার আগে আইনমন্ত্রী ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহহাব মিঞা ও আপিল বিভাগের অন্যান্য বিচারপতিদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করেন বলে জানান আইন মন্ত্রণালয়ের জনসংযোগ কর্মকর্তা ড. রেজাউল করিম।

ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতির সঙ্গে সোয়া এক ঘণ্টার বৈঠক শেষে আইনমন্ত্রী সাংবাদিকদের জানান, নির্বাহী বিভাগ ও বিচার বিভাগের মধ্যে আইন মন্ত্রণালয় সেতুবন্ধন হিসেবে কাজ করে। এর আগেও দু’জন প্রধান বিচারপতি দায়িত্বে ছিলেন, আমি তাদের সঙ্গে সাক্ষাৎ করে এ কথাই বলেছিলাম।

উল্লেখ্য, গত ২ অক্টোবর রাত সাড়ে ১১টায় প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার এক মাসের ছুটির কারণে বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহহাব মিঞাকে ভারপ্রাপ্ত প্রধান বিচারপতি হিসেবে নিয়োগ দিয়ে প্রজ্ঞাপন জারি করে আইন মন্ত্রণালয়।

প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা অসুস্থতাজনিত কারণে রাষ্ট্রপতির কাছে ওই এক মাসের ছুটি চান। পরে ছুটির বিষয়টি আইনমন্ত্রী আনিসুল হক ও অ্যাটর্নি জেনারেল মাহবুবে আলম গণমাধ্যমকে বিষয়টি নিশ্চিত করেন।

রাষ্ট্রপতির আদেশক্রমে আইন ও বিচার বিভাগের সচিব আবু সালেহ শেখ মো. জহিরুল হক স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, ‘বাংলাদেশের মহামান্য রাষ্ট্রপতি সংবিধানের ৯৬ অনুচ্ছেদ অনুযায়ী প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহার শারীরিক অসুস্থতাজনিত কারণে আগামী ৩ অক্টোবর (আজ) ১ নভেম্বর পর্যন্ত ৩০ দিন ছুটি মঞ্জুরের বিষয়ে সানুগ্রহ অনুমোদন প্রদান করেছেন। মাননীয় প্রধান বিচারপতির অসুস্থতাজনিত ছুটি ভোগকালীন বাংলাদেশের সুপ্রিম কোর্টের আপিল বিভাগের প্রবীণতম বিচারপতি মো. আবদুল ওয়াহ্হাব মিঞাকে বাংলাদেশের প্রধান বিচারপতির কার্যভার পালনের দায়িত্ব দিয়েছেন।’