চট্টগ্রাম, , রোববার, ১৮ নভেম্বর ২০১৮

রামগড়ে ডাকাতের উপদ্রুপ; এলাকাবাসীর রাত জেগে পাহারা

প্রকাশ: ২০১৭-১০-০৪ ০০:৪৮:৫০ || আপডেট: ২০১৭-১০-০৪ ০০:৪৮:৫০

করিম শাহ
রামগড় (খাগড়াছড়ি) প্রতিনিধি

রামগড় (খাগড়াছড়ি) প্রতিনিধিঃ জেলার রামগড় পৌরসভার সদুকার্বারীপাড়া ও ফেনীরকুল এলাকায় গত এক সপ্তাহে তিনটি বাড়িতে ডাকাতি ও ডাকাতির চেষ্টার ঘটনায় এলাকাবাসী রাত জেগে পাহারা দিচ্ছে এবং জোরদার করা হয়েছে পুলিশের তল্লাশি ও বৃদ্ধি করা হয়েছে টহল।

স্থানিয় ও পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৭ সেপ্টেম্বর রাত ২ টার পর পৌরসভার শালবাগান একালার পার্শবর্তী বাগান বাজার ইউনিয়নের হাজিপাড়া এলাকায় জৈনিক তোফাজ্জলের বাড়িতে ডাকাতি ও অশ্লিলতা হানির চেষ্টা করে ডাকাত দল। একই রাতে সাড়ে ৩টার দিকে পৌরসভার দক্ষিণ সদুকার্বারী পাড়ার আবুল কালামের বাড়িতে ডাকাতির ঘটনা ঘটে। এর আগে হাজিপাড়া এলাকায় দ্বীন মোহাম্মদের মুদি দোকনের নগদ টাকা ও মালামাল লুটের অভিযোগ পাওয়া গেছে। এসব ঘটনার দুইদিন পর পাশ^াবর্তী ফেনীরকুল এলাকার প্রবাসীর স্ত্রী ফেরদৌসের বাড়িতে একই কায়দায় চুরীর ঘটনা ঘটেছে। আবার ঐ দিনে রাতে পাশ^বর্তী নজিরটিলা একটি বাড়িতে ডাকাতির চেষ্টা করে ডাকাত দল। তাছাড়া আশংকা জনক হারে বাড়ছে মোবাইল ও নগদ টাকা চুরীর ঘটনা।

ক্ষতিগ্রস্থদের সূত্রমতে, ডাকাত দল প্রথমে কৌশলে দরজার ফিতকারী ভেঙ্গে ঘরে প্রবেশ করে ধারালো চাপাতি, চাকু, সুরী ও লোহার রড দেশীয় অন্ত্রের মুখে সবাইকে জিম্মি করে হাত, পা, চোখ বেঁধে মারপিট করে স্বর্ণালঙ্কার ও নদগ টাকা নিয়ে যায়। কোথাও কোথাও ঘরের শিশু সন্তাদের জিম্মি করে ডাকাতি করছে।

স্থানিয় ওয়ার্ড কাউন্সিলর সাহাব উদ্দিন জানান, হঠাৎ ডাকাতের উৎপাতে গ্রামবাসী আতংকৃত। এ ব্যাপারে প্রশাসনকে তড়িৎ অবহিত ও ব্যবস্থা গ্রহনের অনুরোধ করা হয়েছে। তাছাড়া রাত জেগে গ্রামবাসী পাহারা দিচ্ছেন।

রামগড় থানা অফিসার ইনচার্জ শরিফুল ইসলাম জানান, ডাকাতির খবর শুনে ভিকটিমদের বাড়িতে গিয়ে খোঁজ খবর নিয়েছি। ঘটনাটির পরপরই পুলিশ রাতভর সন্দেহ জনক স্থানে ব্যক্তি ও যানবাহন তল্লাশি করছে ও টহল বৃদ্ধি করা হয়েছে। এছাড়া যতদ্রুত সম্ভব ডাকাত দলটিকে সনাক্ত করে আইনের আওতায় আনা হবে বলে তিনি আসন্থ করেন।