চট্টগ্রাম, , মঙ্গলবার, ২১ আগস্ট ২০১৮

মায়ানমারের নিরীহ বেসামরিক নাগরিকদের রক্ষায় পদক্ষেপ চায় বাংলাদেশ

প্রকাশ: ২০১৭-০৮-২৭ ০৯:০৫:১৪ || আপডেট: ২০১৭-০৮-২৭ ০৯:০৫:১৪

মায়ানমারের রাখাইন রাজ্যে ‘নিরীহ বেসামরিক নাগরিকদের’ রক্ষায় দেশটি কেন কোন পদক্ষেপ গ্রহণ করেনি তা জানতে চেয়েছে বাংলাদেশ। ওই রাজ্যে সেনাবাহিনীর অভিযানে ৮৯ ব্যক্তি নিহত হওয়ার খবর পাওয়া গেছে।

পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের এক বিবৃতিতে বলা হয়, ‘বাংলাদেশ মনে করে ওই রাজ্যের নাগরিকদের রক্ষার দায়িত্ব সংশ্লিষ্ট সরকারের এবং বেসামরিক জনগণ বিশেষ করে নারী, শিশু ও বয়স্ক ব্যক্তিদের যথাযথ সুরক্ষা ও আশ্রয়ের ব্যবস্থা নিশ্চিত করতে মায়ানমারকে আহ্বান জানাচ্ছে বাংলাদেশ।’

বিবৃতিতে বলা হয়, ২৫ আগস্ট রাখাইনে মায়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশ (বিজিপি) কর্তৃক নতুন করে হামলার বিষয়টি বাংলাদেশ লক্ষ্য করেছে এবং এই হামলার প্রতিবাদ করেছে। কিন্তু এই হামলা ক্রমাগত চলায় সংশ্লিষ্ট নিরীহ জনগণের জীবননাশ হয়েছে, ‘যা রাথেডং-বুধিডং এলাকায় সম্প্রতি সেনাবাহিনীর অভিযানে ঘটেছে।’

শনিবার এশিয়া ও প্রশান্ত মহাসাগর অঞ্চলের সচিব মাহবুব উজ জামানের সঙ্গে ঢাকায় নিযুক্ত মায়ানমারের চার্জ দ্য অ্যাফেয়ার্সের সঙ্গে ‘রাখাইন রাজ্যের উদ্ভূত পরিস্থিতি নিয়ে আলোচনার’ পরপরই এই বিবৃতিটি ইস্যু করা হয়।

‘এই সমস্যা সমাধানে মূল কারণ অনুসন্ধানে ব্যাপকভাবে ও সার্বিক প্রক্রিয়ায় আলোচনা চলায় সচিব গুরুত্ব দিয়েছেন’ উল্লেখ করে বিবৃতিতে বলা হয়, বাংলাদেশ মনে করছে যখন রাখাইন অ্যাডভাইজরি কমিশন, যা কফি আনান কমিশন হিসেবে সমধিক পরিচিত, তার সুপারিশমালা রাখাইন রাজ্যের পরিস্থিতির সমাধানে এগিয়ে যাবে, সেই সময়েই এই সন্ত্রাসী হামলা ও সংঘর্ষের ঘটনা ঘটেছে।