টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

কেন্দ্রীয় বর্ধিত সভায় অংশগ্রহণের সুযোগ পাচ্ছে না চবি ছাত্রলীগ

চট্টগ্রাম, ১১ জুন ২০১৭ (সিটিজি টাইমস): বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের আয়োজনে রোববার থেকে শুরু হচ্ছে দুই দিনব্যাপী ছাত্রলীগের বর্ধিত সভা ও কর্মশালা। কর্মশালায় দেশব্যাপী ছাত্রলীগের ১০৯টি ইউনিটের নেতাকর্মী অংশগ্রহণের সুযোগ পাচ্ছে। কিন্তু অনির্দিষ্টকালের জন্য চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয় (চবি) ছাত্রলীগের কমিটি স্থগিত থাকায় বর্ধিত সভা ও কর্মশালায় অংশগ্রহণ করতে পারছে না চবি ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক।

শনিবার রাতে ফোনে বিষয়টি নিশ্চিত করে বাংলাদেশ কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগের সভাপতি সাইফুর রহমান সোহাগ জানান, স্থগিতকৃত কমিটির বর্ধিত সভায় অংশগ্রহণের সুযোগ নেই বিধায় চবি ছাত্রলীগের সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদক কাউকেই আমরা দাওয়াত করিনি। তাদের কমিটি স্থগিত থাকায় তারা এতে অংশগ্রহণ করতে পারবে না এবং তাদের সাংগঠনিক প্রতিবেদন পেশ করারও সুযোগ থাকছে না।

এদিকে বর্ধিত সভায় অংশগ্রহণ করছেন জানিয়ে চবি ছাত্রলীগের স্থগিত কমিটির সভাপতি আলমগীর টিপু বলেন, দাওয়াত না পেলেও কেন্দ্রীয় সভাপতি আমাদের যেতে বলেছেন। এতে বক্তব্য ও সাংগঠনিক প্রতিবেদন পেশ না করতে পারলেও উপস্থিত থাকব আমরা। পাশাপাশি কমিটির উপর স্থগিতাদেশ তুলে নেওয়ার বিষয়ে কেন্দ্রকে অবগত করব।

এ বিষয়ে চবি ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক এইচ এম ফজলে রাব্বী সুজন বলেন, স্থগিতাদেশ থাকায় যেহেতু বর্ধিত সভায় অংশগ্রহণের নিয়ম নেই তবে আমরা বঙ্গবন্ধুর সৈনিক হিসেবে উপস্থিত থাকব।

কেন্দ্রীয় বর্ধিত সভায় চবি ছাত্রলীগকে দাওয়াত না দেওয়ায় নাম প্রকাশ্যে অনিচ্ছুক চবি ছাত্রলীগের কয়েকজন নেতাকর্মী ক্ষোভ প্রকাশ করে বলেন, বাংলাদেশ ছাত্রলীগের ইউনিটগুলোর মধ্যে চবি ছাত্রলীগ একটি অন্যতম ইউনিট। কেন্দ্রের বর্ধিত সভায় চবি ছাত্রলীগ দাওয়াত না পাওয়ায় আমরা আশাহত।

২০১৫ সালের ২০ জুলাই চবি ছাত্রলীগের কমিটি গঠনের পর দুইবার স্থগিতাদেশ দিয়েছে কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ। সর্বশেষ এবছর ৪ মে চট্টগ্রাম বিশ্ববিদ্যালয়ে ছাত্রলীগের দুপক্ষের সংঘর্ষের ঘটনায় কেন্দ্রীয় ছাত্রলীগ অনির্দিষ্টকালের জন্য চবি ছাত্রলীগের সকল সাংগঠনিক কার্যক্রম স্থগিত ঘোষণা করেন।

মতামত