টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

তারা বানিয়েছে আমরা ভোগ করব: প্রধানমন্ত্রী

চট্টগ্রাম, ০৫ মে ২০১৭ (সিটিজি টাইমস):: সাউথ এশিয়ান স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণ করেছে ভারত। দেশটির আমন্ত্রণে এই স্যাটেলাইটে যোগ দিয়েছে বাংলাদেশও। আর এতে বিনা পয়সায় স্যাটেলাইটের সুবিধা পাওয়ার আশা করছেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। স্যাটেলাইটটি উৎক্ষেপণ উপলক্ষে এক অনুষ্ঠান শেষে তিনি এই আশার কথা বলেন।

ভারত এই স্যাটেলাইট উৎক্ষেপণের উদ্যোগ নেয়ার পর ২০১৪ সালের সার্ক সম্মেলনে দক্ষিণ এশিয়ার সব দেশকে এ উপগ্রহের সঙ্গে যুক্ত হওয়ার আমন্ত্রণ জানিয়েছিল। এতে সার্কভুক্ত আট দেশের মধ্যে পাকিস্তান ছাড়া বাকি সবাই এতে অংশ নিয়েছে।

এই স্যাটেলাইটের ফলে টেলি মেডিসিন, টেলি শিক্ষা, আন্তঃসরকার নেটওয়ার্ক, দুর্যোগ পরিস্থিতিতে জরুরি যোগাযোগ, টেলিভিশন ব্রডকাস্ট ও ডিটিএইচ টেলিভিশন সেবার সুবিধা পাবে বাংলাদেশ।

৪০ কোটি ডলারের এই স্যাটেলাইটের পুরো ব্যয় বহন করছে ভারত। এই কৃত্রিম উপগ্রহের ১২টি ট্রান্সপন্ডারের মধ্যে একটি পাচ্ছে বাংলাদেশ। এই প্রকল্পের মাধ্যমে ভারত, বাংলাদেশ, নেপাল, ভুটান, মালদ্বীপ, শ্রীলঙ্কা ও আফগানিস্তান নিজেদের মধ্যে কার্যকর যোগাযোগ, সুশাসন, উন্নত ব্যাংকিং সেবা এবং উন্নত শিক্ষা নিশ্চিত করতে পারবে বলে আশার কথা জানিয়েছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি।

বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাও এই স্যাটেলাইটকে দেখছেন সহযোগিতার নতুন ক্ষেত্র হিসেবে। তিনি বলেন, ‘আমরা ভূমি, পানির পাশাপাশি মহাকাশেও এখন সহযোগিতার ক্ষেত্র তৈরি করেছি। এই স্যাটেলাইট ভবিষ্যতে সহযোগিতা আরও বৃদ্ধি করবে।’

ভারতে স্যাটেলাইটটি উৎক্ষেপণ উপলক্ষে ভিডিও কনফারেন্সে যুক্ত হন এই সাত দেশের সরকার বা রাষ্ট্র প্রধান। তারা বক্তব্যও রাখেন এ সময়।

এই আনুষ্ঠানিকতা শেষ হওয়ার পরও গণভবন থেকে সরাসরি সম্প্রচার চলছিল রাষ্ট্রীয় টেলিভিশন বিটিভিতে। এ সময় স্যাটেলাইটটি নিয়ে প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে তার পাশে থাকা কয়েকজনের কথোপকথন প্রচার হচ্ছিল। প্রধানমন্ত্রী হাসতে হাসতে এ সময় বলেন, ‘ভালোই হলো, তারা বানিয়েছে, আমরা ভোগ করবো।’

মতামত