টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

বাংলাদেশি ৮ জেলেকে ধরে নিয়ে গেছে মিয়ানমার নৌ-বাহিনী

চট্টগ্রাম, ১০ মার্চ ২০১৭ (সিটিজি টাইমস): বাংলাদেশর আট জেলেকে ধরে নিয়ে গেছে মিয়ানমারের নৌ-বাহিনী। এ সময় জেলেদের ফিশিং ট্রলারটি সাগরে ডুবিয়ে দেয়া হয়েছে। এতে চরম উৎকণ্ঠায় রয়েছেন অপহৃত জেলেদের পরিবার।

বৃহস্পতিবার দুপুরের দিকে বঙ্গোপসাগরে বাংলাদেশের জলসীমার সেন্টমার্টিনের দক্ষিণ-পশ্চিম এলাকায় এ ঘটনা ঘটে।

প্রত্যক্ষদর্শী জেলেরা জানান, বঙ্গোপসাগরের সেন্টমার্টিনের কাছাকাছি এলাকায় বেশ কয়েকটি ফিশিং ট্রলার মাছ শিকার করছিল। হঠাৎ করে মিয়ানমার নৌ-বাহিনীর একটি জাহাজ এসে তাদের ধাওয়া করে। এসময় ট্রলারগুলো পালিয়ে গেলেও একটি ট্রলারকে ধাক্কা দিয়ে ডুবিয়ে দেয় বার্মা বাহিনী। পরে ট্রলারে থাকা আট জেলেকে তুলে নিয়ে যায় তারা।

অপহৃত জেলেরা হলেন- টেকনাফ শাহপরীর দ্বীপ বাজারপাড়া এলাকার মৃত হাবিবুর রহমানের ছেলে আব্দু রশিদ মাঝি (৪০), জালিয়াপাড়া এলাকার মৃত হাসানের ছেলে সৈয়দ করিম (৪০), কোনারপাড়া এলাকার নূরুল আমিনের ছেলে নূর হাসান (২৮), ক্যাম্পপাড়া এলাকার আব্বাসের ছেলে মোহাম্মদ উল্লাহ (৫৫), মাঝেরপাড়া এলাকার ফজলুলের ছেলে জামাল হোসেন (৩৭), মিস্ত্রিপাড়া এলাকার মো. কালুর ছেলে দিল মোহাম্মদ (৩৬) ও ডাঙ্গরপাড়া এলাকার জাফরের ছেলে সাদেক (৩৫), একই এলাকার ফজল আহাম্মদের ছেলে জাকের (৫৫)।

ট্রলারটির মালিক আবুল হোসেন মাঝি টেকনাফ শাহপরীর দ্বীপ মাঝের পাড়ার বাসিন্দা। তিনি জানান, ঘটনার খবর পেয়ে স্থানীয় প্রশাসনের সহায়তায় আরেকটি ট্রলার নিয়ে সাগরে তল্লাশি চালিয়ে ডুবে যাওয়া ট্রলারটি খুঁজে বের করা হয়েছে। এখন ওই ট্রলারটি টেনে তীরে আনা হচ্ছে।

টেকনাফস্থ ২ বর্ডার গার্ড ব্যাটালিয়ন অধিনায়ক লে. কর্নেল আবুজার আল জাহিদ জানান, সাগর থেকে জেলে ধরে নিয়ে যাওয়ার বিষয়টি শোনার পর দোভাষী দিয়ে মিয়ানমার বর্ডার গার্ড পুলিশের সঙ্গে যোগাযোগ করা হলে তারা আট জেলেকে ধরে নিয়ে যাওয়ার বিষযটি স্বীকার করেছেন। শুক্রবার সকাল ১০টায় তাদের ছেড়ে দেয়া হবে বলে জানিয়েছেন তিনি।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত