টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

বান্দরবান বিএনপির নতুন কমিটির ২১ সদস্যের মধ্যে ১২ জনের পদত্যাগ

শহীদুল ইসলাম বাবর
বিশেষ প্রতিনিধি

চট্টগ্রাম, ০৪ মার্চ ২০১৭ (সিটিজি টাইমস):: সদ্য ঘোষিত বান্দরবান জেলা বিএনপির ২১ সদস্যের মধ্যে সংবাদ সম্মেলন করে ১২ জন পদত্যাগ করেছেন বলে ঘাষনা দিয়েছেন। পদত্যাগীর মধ্যে তিন জন উপজেলা চেয়ারম্যানও রয়েছে। ৪ মার্চ বিকালে বান্দরবান সদরে জেলা বিএনপির কার্যলয়ে আয়োজিত সংবাদ সম্মেলনে ১২ সদস্যের পদত্যাগের কথা জানানো হয়। এর আগে দলের ম মধ্যে সংস্কারপন্থি ও আওয়ামীলীগের সাথে আতাতকারী হিসেবে বহুল পরিচিত মাম্যাচিংকে সভাপতি ও জাবেদ রেজাকে সাধারণ সম্পাদক করে ২১ জনের নাম উল্লেখ করে আংশিক কমিটি ঘোষনা করেন বিএনপির কেন্দ্রীয় কমিটি। বান্দরবান জেলা বিএনপির সভাপতি রাজপুত্র সাচিং প্রু জেরি দেশের বাইরে অবস্থানকালীন সময়ে কাউন্সিলরদের মতামত উপেক্ষা করে উপরোক্ত কমিটি ঘোষনার পর থেকে বিএনপি ছাড়াও অংশ সংগঠন ও সহযোগী সংগঠনের মধ্যে পদত্যাগের হিড়িক পড়ে। এ অবস্থায় বান্দরবান জেলার তিনজন উপজেলা চেয়ারম্যানের উপস্থিতিতে জেলার শীর্ষ নেতারা পদত্যাগের কথা ঘোষনা করলেন সংবাদ সম্মেলনে। সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন যথাক্রমে সদর উপজেলা চেয়ারম্যান আবদুল কুদ্দুছ. লামা উপজেলা চেয়ারম্যান উপজেলা সাধারন সম্পাদক থোয়াইনু অং চৌধুরী, আলিকদম উপজেলা চেয়ারম্যান ও উপজেলা সভাপতি আবুল কালাম, সদ্য বিলুপ্ত জেলা কমিটির সাধারন সম্পাদক আজিজুর রহমান, সদর উপজেলা সভাপতি সাবেক চেয়ারম্যান রুই প্রু অং চৌধুরী, সাবেক চেয়ারম্যান সহ সভাপতি আলহাজ্ব নাজেমুল ইসলাম চৌধুরী, সহ সভাপতি আলহাজ্ব আবদুস শুক্কুর, নাইক্ষ্যংছড়ি উপজেলা সভাপতি নুরুল আলম কোম্পানী, লামা উপজেলা সভাপতি সাবেক মেয়র আমির হোসেন আমু, যুগ্ম সম্পাদক মুজিবুর রশিদ, প্রচার সম্পাদক সা শৈ প্রু। এছাড়াও সেচ্ছাসেবক দল, যুবদল, ছাত্র দল ও মহিলা দলের অনেক নেতা ঘোষিত কমিটির অধীনে কাজ করা সম্ভব নয় উল্লেখ করে নিজ নিজ দল থেকে পদত্যাগ করেছেন।

সংবাদ সম্মেলনে লিখিত বক্তব্যে পদত্যাগী নেতারা দলের চেয়ার পার্সন বেগম খালেদা জিয়াকে উদ্যেশ্য করে বলেন, আমরা সদ্য ঘোষিত বান্দরবান জেলা বিএনপির কমিটির বিভিন্ন পর্যায়ের সদস্য হই।

গত ১ বছর পূর্বে সম্পুর্ন গনতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় গঠনতন্ত্র মোতাবেক ৭ উপজেলা ও ২ পৌরসভার কাউন্সিল হয়। তৎকালিন যুগ্ম সম্পাদক জনাব মো: শাহাজাহান ও তৎকালিন সাংগঠনিক সম্পাদক গোলাম আকবর খন্দকার জেলা সম্মেলনের জন্য ৯৮৩ জন কাউন্সিলরের তালিকা অনুমোদন করেন। তখন থেকে জেলা কমিটি সম্মেলন হওয়ার অপেক্ষায় ছিল।

আপনার অবগতির জন্য জানাচ্ছি যে, গত ১ বছর পূর্বে সম্পূর্ণ গনতান্ত্রিক প্রক্রিয়ায় গঠনতন্ত্র মোতাবেক সম্মেলন করার জন্য মহা সচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর, স্থায়ী কমিটির সদস্য আমির খসরু মাহমুদ চৌধুরী, ভাইস চেয়ারম্যান মো: শাহাজাহান, মাননীয় চেয়ারপার্সন এর উপদেষ্ঠা গোলাম আকবার খন্দকার,সাংগঠনিক সম্পাদক মাহবুবুর রহমান শামীম এর কাছে লিখিত আবেদন দাখিল করেছি।

গত ১৭ ই নভেম্বর ২০১৬ ইং আপনার নির্দেশিত হয়ে ভাইস চেয়ারম্যান শামসুজ্জামান দুদু এর নেতৃত্বে প্রতিনিধি দল জেলা কমিটি ও উপজেলা নেতৃবৃন্দ নিয়ে প্রতিনিধি সম্মেলন করেন। প্রতিনিধি সম্মেলনে ৯৯ ভাগ সদস্য কাউন্সিলের পক্ষে মতামত দেন।

এরি মধ্যে গত ১ মার্চ ২০১৭ ইং তারিখ পত্রিকা মারফত জানতে পারি তৃণমূলের মতামতকে উপেক্ষা করে বান্দরবান জেলা বিএনপির আংশিক কমিটি ঘোষনা করা হয়েছে। সম্পূর্ণ অগনাত্রান্ত্রিক ভাবে তৃনমূলের মতামত উপেক্ষা করে কমিটি গঠন করায় আমরা নিম্ন সাক্ষরকারীগণ ঘোষিত কমিটি থেকে নিজেদের নাম প্রত্যাহার করে নিচ্ছি। সর্বশেষে আমাদের আবেদন সদ্য ঘোষিত কমিটি স্থগিত করে, পূর্বের কমিটি বহাল করে তুণমূলের মতামতকে মূল্যায়ন করে অনুমোদিত ৯৮৩ জন কাউন্সিলর নিয়ে সম্মেলন করার নির্দেশনা প্রার্থনা করছি।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত