টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

চিটাগংকে হারিয়ে টিকে থাকল রাজশাহী

চট্টগ্রাম, ০৩ ডিসেম্বর  ২০১৬ (সিটিজি টাইমস): মিরপুর শের-ই-বাংলা স্টেডিয়ামে বিপিএলে দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে বড় জয় পেয়েছে রাজশাহী কিংস। জেমস ফ্রাঙ্কলিনের ঝড়ো ব্যাটিংয়ে ৬ উইকেটে জয় পায় রাজশাহী।

শনিবার চিটাগংয়ের দেয়া ১১২ রানের লক্ষ্য ৪ উইকেট হারিয়ে ৩৭ বল বাকি থাকতেই টপকে যায় রাজশাহী। ফ্রাঙ্কলিন মাত্র ২৭ বলে করেন ৬৩ রান। ৪টি ছক্কা ও ৫টি চারে সাজানো তার ইনিংস।

এছাড়া মুমিনুল হক ২১ রান করেন। চিটাগংয়ের হয়ে সাকলাইন সজিব ও ইমরান খান জুনিয়র ২টি করে উইকেট লাভ করেন।
টস হেরে ব্যাট করতে নামে তামিম ইকবালের চিটাগং। রাজশাহী কিংসের হয়ে অভিষেক হওয়া আফিফ হোসেনের বোলিং তোপে নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১১১ রান সংগ্রহ করে চিটাগং।

ব্যাট করতে নেমে শুরুটা ভালো হয়নি চিটাগংয়ের। কোনো রান না করেই কেসরিক উইলিয়ামসের বলে সাজঘরে ফেরেন তামিম। ব্যক্তিগত ৮ রান করে মেহেদী হাসান মিরাজের বলে আউট হন আনামুল বিজয়।

দলীয় ২৪ রানে আম্পায়ারের ভুল সিদ্ধান্তের বলি হন জহুরুল ইসলাম অমি। তিনি ১৩ রান করে আফিফের বলে লেগ বিফোরের ফাঁদে পড়েন। এরপরই শুরু হয় আফিফের ঘূর্ণি জাদু। ক্যারিবীয় ব্যাটিং দানব ক্রিস গেইলকে প্যাভিলিয়নে পাঠান আফিফ। গেইল ১৫ বল খেলে ৫ রান করে আফিফের বলে বোল্ড হন।

এরপর জাকির হাসান, সাকলাইন সজিব এবং ইমরান খান জুনিয়রের উইকেট তুলে নেন আফিফ। বিপদজনক ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ নবীকে ফেরান নাজমুল হাসান অপু। নবী ১২ রান করেন। ২ রান করা তাসকিনকে ফেরান উইলিয়ামস।

তবে একপ্রান্ত আগলে রেখে খেলেন শোয়েব মালিক। তার দায়িত্বশীল ব্যাটিংয়ের কারণেই শতরান পার করতে পারে চিটাগং ভাইকিংস। শোয়েব মালিক একাই ৬৭ রান করে অপরাজিত থাকেন।

বিপিএলের অভিষেকেই ৪ ওভার বল করে মাত্র ২১ রান দিয়ে ৫ উইকেট তুলে নিয়েছেন আফিফ হোসেন।

মতামত