টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

৫০ ‍লাখ টাকা না দেয়ায় খুন হয় ব্যবসায়ী জালাল, আটক আরও ২

চট্টগ্রাম, ২৪  নভেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস)::  চট্টগ্রামের আগ্রাবাদে জালাল উদ্দিন সুলতান খুনের ঘটনায় আরও দুইজনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। এরা হলেন- লীলু আক্তার (২২) ও মো. রাসেল (১৯)। এদের মধ্যে লীলু এ হত্যার ঘটনায় আগে গ্রেপ্তার হওয়া মোহাম্মদ কামালের স্ত্রী এবং রাসেল তার ফুফাতো ভাই।

বুধবার রাতে ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) সদস্যরা তাদের গ্রেপ্তার করে বলে জানিয়ে পিবিআইর পরিদর্শক সন্তোষ কুমার চাকমা বলেন, লীলু আক্তারকে চট্টগ্রামের কর্ণফুলী থানার ইছানগর এলাকা থেকে এবং রাসেলকে চট্টগ্রাম নগরীর শুলকবহর এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করা হয়।

 এদিকে, ব্যবসায়ী জালাল উদ্দিন সুলতানকে (৪৬) নির্মমভাবে শ্বাসরোধ করে খুনের নেপথ্যের রহস্য উদঘাটন করেছে মামলার তদন্তকারী সংস্থা পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশন (পিবিআই)।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা পিবিআই, চট্টগ্রামের পরিদর্শক সন্তোষ কুমার চাকমা জানিয়েছে, জালালকে কৌশলে আটকে ৫০ লাখ টাকা দাবি করা হয়। তিনি টাকা দিতে অস্বীকার করায় তাকে মুখে বালিশ চাপা দিয়ে নির্মমভাবে খুন করা হয়।

বৃহস্পতিবার (২৪ নভেম্বর) বিকেলে তাদের আদালতে হাজির করা হয়। চট্টগ্রাম মহানগর হাকিম নাজমুল হোসেন চৌধুরীর আদালতে উভয়ই দায় স্বীকার করে ১৬৪ ধারায় জবানবন্দি দেন বলে জানান সন্তোষ কুমার চাকমা।

এর আগে কামালকে গত সোমবার গ্রেফতার করা হয়। এরপর তাকে রিমান্ডে নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ করা হয়। কামাল রিমান্ডে জিজ্ঞাসাবাদে তার স্ত্রী-ফুপাত ভাইসহ কয়েকজন হত্যায় জড়িত থাকার বিষয় প্রকাশ করে। ওই তথ্যের ভিত্তিতে আমরা লিলু ও রাশেদকে গ্রেফতার করেছে বলে জানালেন  পিবিআই পরিদর্শক সন্তোষ কুমার চাকমা।

বাড়ি থেকে পারিবারিক ব্যবসা প্রতিষ্ঠানে যাওয়ার উদ্দেশে বের হয়ে শনিবার সকালে নিখোঁজ হয়েছিলেন জালাল উদ্দিন (৫০)।পরে রোববার সকালে নগরীর আগ্রাবাদ সিডিএ এলাকার ২৯ নম্বর রোডের ব্যাংক কলোনির উত্তর গেইটে নালার ওপরে বস্তাবন্দি অবস্থায় তার লাশ উদ্ধার করে পুলিশ।

লাশ উদ্ধারের পর জালালের ছেলে ইমাজ উদ্দিন সুলতান বাদী হয়ে ডবলমুরিং থানায় একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় কামালকে গ্রেপ্তারের পর পিবিআই জানায়, কামাল ১০ বছর আগে খুন হওয়া জালালের বাড়িতে ভাড়া থাকতেন। সেই সময় জালালের সঙ্গে শত্রুতায় জড়িয়ে পড়েছিলেন কামাল।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত