টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

কুমিল্লা-চিটাগং ম্যাচ দিয়ে বিপিএল শুরু আজ

চট্টগ্রাম, ০৮ নভেম্বর (সিটিজি টাইমস):  সবকিছুই ঠিকঠাক ছিল। নির্ধারিত সময়ে টসও করেছিলেন দুই অধিনায়ক কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্সের মাশরাফি বিন মর্তুজা ও রাজশাহী কিংসের ড্যারেন সামি। জিতেছিলেন সামি, কিন্তু খেলার জয়-পরাজয়ের কোন সুযোগ পাওয়া যায়নি। ঘূর্ণিঝড় নাদার ধাক্কায় বঙ্গোপসাগরে যে লঘুচাপের সৃষ্টি, সেটার প্রভাবে বিরামহীন বৃষ্টির দাপটে মিরপুর শেরেবাংলা জাতীয় স্টেডিয়ামের উইকেট কাভারে ঢাকা ছিল।

কোন বলই হয়নি শুক্রবার চতুর্থ বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লীগ (বিপিএল) টি২০ আসরের প্রথমদিন দুই ম্যাচে। সেটা অব্যাহত ছিল পরদিনও। এ কারণে রবিবার তৃতীয় দিনের খেলা পরিত্যক্ত করে সিদ্ধান্ত হয়েছে রিজার্ভ ডে গুলোতে পরিত্যক্ত ম্যাচগুলো আয়োজনের। এ কারণে আজ থেকে মাঠে গড়াচ্ছে বিপিএল। নতুন করে শুরুটা আজই। এবারও উদ্বোধনী ম্যাচে গতবারের চ্যাম্পিয়ন মাশরাফির কুমিল্লা ভিক্টোরিয়ান্স।

তাদের প্রতিপক্ষ তামিম ইকবালের চিটাগং ভাইকিংস। ম্যাচটি দুপুর ২টায় শুরু হবে। একই দিনে সন্ধ্যা ৭টায় মুখোমুখি হবে সাকিব আল হাসানের ঢাকা ডায়নামাইটস ও মুশফিকুর রহীমের বরিশাল বুলস।

এবার বিপিএলের চতুর্থ আসরের শুরুটাই ম্যাড়ম্যাড়ে হয়ে গেছে। আগের তিন আসরে বর্ণাঢ্য উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হলেও এবার সেটা হয়নি। ম্যাচ শুরুর দিন টসের পর বেলুন উড়িয়ে সাদামাটা শুভযাত্রা করা হয়েছিল। কিন্তু এরপর বৃষ্টিতে কোন বলই মাঠে গড়াল না। অবশেষে চতুর্থ আসরের উদ্বোধনী ম্যাচ হতে যাচ্ছে আজ। আগের সূচীতে গত আসরের চ্যাম্পিয়ন কুমিল্লার ম্যাচ ছিল, এবারও তাই আছে। তবে মাশরাফিদের প্রতিপক্ষ পরিবর্তন হয়েছে। গত আসরে অংশগ্রহণকারী দলগুলোর মধ্যে সবার নিচে থেকে শেষ করা চিটাগং এবার মুখোমুখি হচ্ছে মাশরাফির।

বাংলাদেশ জাতীয় দলের ক্ষুদ্র ফরমেটের অধিনায়ক ‘নড়াইল এক্সপ্রেসের’ জন্য দারুণ গেছে সবগুলো বিপিএলই। প্রথম দুই আসরে তিনি ঢাকা গ্ল্যাডিয়েটর্সকে চ্যাম্পিয়ন করেছেন। গত আসরে কাগজে-কলমে গড়পড়তা একটা দলকে নেতৃত্ব দিয়েও শিরোপা পাইয়ে দিয়েছেন। এবারও দলকে চ্যাম্পিয়ন করে সাফল্যের চতুষ্টয় গড়ার সুযোগ তার। আজকের দিনটিও বিশেষভাবে গুরুত্বপূর্ণ মাশরাফির জন্য।

১৫ বছর আগে এদিনই তিনি আন্তর্জাতিক ক্রিকেটে পদযাত্রা শুরু করেছিলেন টেস্ট ক্রিকেট দিয়ে। তাই জিততেই চাইবেন বাংলাদেশ ক্রিকেটের সফলতম অধিনায়ক। এ বিষয়ে মাশরাফি বলেন, ‘শুরুটা ভাল হওয়া জরুরী। প্রথমে জিততে পারলে একটা ছন্দ চলে আসে। চ্যাম্পিয়নশিপ নিয়ে এখনই কিছু বলা সম্ভব নয়, অতদূর চিন্তা করছি না। সবাই যার যার সামর্থ্য নিয়ে খেলতে পারলে ভাল কিছুই আশা করছি।’

মাশরাফির দলে গত আসরের মতো এবারও উদীয়মান কয়েকজন তরুণ আছেন। এর মধ্যে অনুর্ধ ১৯ থেকে উঠে আসা টপঅর্ডার ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্ত, পেস অলরাউন্ডার মোহাম্মদ সাইফুদ্দিন, অলরাউন্ডার আলআমিন জুনিয়র ও অফস্পিন অলরাউন্ডার নাহিদুল ইসলামকে নিয়ে চমক দেখাতে চায় ভিক্টোরিয়ান্সরা। পুরনো খেলোয়াড়দের মধ্যে আছে বর্তমানে দারুণ ফর্মে থাকা ইমরুল কায়েস ও উইকেটরক্ষক লিটন কুমার দাস। বিদেশী ক্রিকেটারদের মধ্যে ওয়েস্ট ইন্ডিজ অধিনায়ক জ্যাসন হোল্ডার ছাড়াও আছেন পাকিস্তানী তরুণ অলরাউন্ডার ইমাদ ওয়াসিম।

এসব কারণে দারুণ কিছুর স্বপ্নই দেখছেন মাশরাফি। তবে তামিমও ভাল শুরু চান। জয় দিয়েই এবার অভিযান শুরুর দিকে দৃষ্টি তার। আগের আসরে বেশ ভাল দল গড়লেও তামিমরা হতাশাজনক নৈপুণ্য দেখিয়েছিল। এবার সেসব কাটিয়ে উঠতে চান তিনি। এবার দলের শক্তিমত্তা আগের চেয়েও বেড়েছে। পেস বোলিংয়ে তাসকিন আহমেদ, শুভাশিষ রায় ও ইমরান হোসেন জুনিয়র আছেন। আর ব্যাটিংয়ে তামিম ছাড়াও পাক অলরাউন্ডার শোয়েব মালিক, ক্যারিবীয় ওপেনার ডোয়াইন স্মিথ আছেন। শক্তিবৃদ্ধি হয়েছে বিধ্বংসী ব্যাটসম্যান ক্রিস গেইল দলে থাকায়।

যদিও তিনি প্রথম দিকে খেলবেন না। কিন্তু একক কারও ওপর নির্ভর করতে নারাজ তামিম। তিনি বলেন, ‘আমার মনে হয় গেইল ফ্যাক্টর নিয়ে ভাবলে আমাদেরই সমস্যা হবে। সবাই যোগ্য এবং আমি মনে করি দলের জন্য সবারই কিছু করার সামর্থ্য আছে। সেটা করতে পারলে আমি আশাবাদী দারুণ কিছুই হবে।’

দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে মুশফিকের প্রতিপক্ষ সাকিব। আগের আসরগুলো নিজে ব্যাট হাতে সফল হলেও দলগতভাবে ব্যর্থতা জুটেছে মুশফিকের। এবার তিনি নতুন ঠিকানা হিসেবে বরিশাল বুলসের নেতৃত্বে। পুরনো সবকিছু ভুলে এবার সফলতা চান বাংলাদেশের টেস্ট অধিনায়ক। গত আসরে চমক দেখানো তরুণ পেসার আবু হায়দার রনি ছাড়াও আছেন আল-আমিন হোসেন, কামরুল ইসলাম রাব্বিরা। বিপিএলে ভাল রেকর্ড থাকা শামসুর রহমান শুভ আছেন।

এছাড়া ক্যারিবীয় অলরাউন্ডার কার্লোস ব্রেথওয়েট, পাকিস্তানের মোহাম্মদ নেওয়াজ, ইংলিশ ক্রিকেটার জশুয়া কবরা আছেন। সাকিবও শুরু করতে চান জয় দিয়ে। তিনি বলেন, ‘শুরুটা ভাল করতে পারলে অনেক আত্মবিশ্বাস চলে আসে। সে কারণে প্রথম ম্যাচের গুরুত্ব অনেক। সেদিকেই আমরা এখন মনোযোগী।’

সাকিবের নেতৃত্বে এবার ডায়নামাইটসে আছেন কুমার সাঙ্গাকারা, মাহেলা জয়াবর্ধনের মতো দুই কিংবদন্তি লঙ্কান ক্রিকেটার। এছাড়া ক্যারিবীয় অলরাউন্ডার আন্দ্রে রাসেল ও ডোয়াইন ব্রাভো এবং ইংলিশ অলরাউন্ডার রবি বোপারা। এত তারকার ভিড়ে দারুণ শক্তিশালী ডায়নামাইটস। তবে সাকিব বলেন, ‘আসলে ভাল দল সেটাই যারা মাঠে ভাল খেলে। এটাই গুরুত্বপূর্ণ। আমাদের কম্বিনেশন ভাল হয়েছে, এখন মাঠে পারফর্ম করাটাই গুরুত্বপূর্ণ।’

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত