টক অব দ্য চট্টগ্রাম
Ad2

ক্রিকেটার শাহাদাতের মামলার রায় আগামীকাল

চট্টগ্রাম,  ০৫  নভেম্বর ২০১৬ (সিটিজি টাইমস)::বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের পেসার কাজী শাহাদাত হোসেন রাজীব ও তার স্ত্রী জেসমিন জাহান নিত্যের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলার রায় আগামীকাল।

ঢাকার পাঁচ নম্বর নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনালের বিচারক তানজীনা ইসমাইল রোববার দুপুরে এ রায় ঘোষণা করবেন।

গত ৩১ অক্টোবর রাষ্ট্রপক্ষ ও আসামিপক্ষের যুক্তিতর্ক উপস্থাপন শেষে রায়ের জন্য এদিন ঠিক করেন ট্রাইব্যুনাল।

গত ২৭ অক্টোবর শাহাদাত ও তার স্ত্রী নিজেদের নির্দোষ দাবি করে আত্মপক্ষ শুনানি করেন।

রাষ্ট্রপক্ষে ওই ট্রাইব্যুনালের পিপি আলী আসগর স্বপন, রাজধানী মানবাধিকার সংস্থার পক্ষে সৈয়দ নাজমুল হুদা ও মহিলা আইনজীবী সমিতির পক্ষে ফাহমিদা আক্তার রিংকি মামলাটি পরিচালনা করেন। আর আসামিদের পক্ষে ছিলেন কাজী নজিবুল্লাহ হিরু।

পিপি আলী আসগর স্বপন বলেন, আসামিদের হেফাজতে থাকা অবস্থায় মাহফুজার ওপর নির্যাতন করা হয়। তারা এর দায় এড়াতে পারেন না। আমরা আশা করছি বিজ্ঞ আদালত আসামিদের উপযুক্ত শাস্তি দেবেন।

আর আসামিপক্ষের আইনজীবী কাজী নজিবুল্লাহ হিরু বলেন, ক্রিকেটার শাহাদাত ও তার স্ত্রী ওই ঘটনার সঙ্গে জড়িত নয়। তাই আমরা আশা করছি তারা খালাস পাবেন।

মামলায় অভিযোগপত্রভুক্ত ১২ জন সাক্ষীর মধ্যে সাতজনের সাক্ষ্য গ্রহণ করেছেন ট্রাইব্যুনাল।

২০১৫ সালের ২৯ ডিসেম্বর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন আইনের ৪(২) খ ধারায় মামলার তদন্ত কর্মকর্তা মিরপুর মডেল থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. শফিকুর রহমান অভিযোগপত্র দাখিল করেন। গত ১২ জানুয়ারি মামলাটি ঢাকা সিএমএম আদালত থেকে ঢাকার পাঁচ নম্বর নারী ও শিশু নির্যাতন দমন ট্রাইব্যুনালে স্থানান্তর করা হয়। এরপর গত ৪ ফেব্রুয়ারি আসামিদের বিরুদ্ধে অভিযোগপত্র গ্রহণ করেন ট্রাইব্যুনাল।

মামলার এজাহারে বলা হয়, ২০১৫ সালের ৬ সেপ্টেম্বর রাত সাড়ে ১১টার দিকে পল্লবীর সাংবাদিক কলোনির ৩ নম্বর সড়কের মাথায় শাহাদাতের বাড়ির গৃহকর্মী মাহফুজা আক্তার হ্যাপিকে (১১) অচেতন অবস্থায় উদ্ধার করা হয়। পরে গৃহকর্মী নির্যাতনের অভিযোগে শাহাদাতের বিরুদ্ধে ওই রাতেই মিরপুর মডেল থানায় মামলা করেন সাংবাদিক খন্দকার মোজাম্মেল হক। এরপর ১৩ সেপ্টেম্বর হ্যাপি আদালতে হাজির হয়ে জবানবন্দি দেয়।

সিটিজি টাইমসে প্রকাশিত সংবাদ সম্পর্কে আপনার মন্তব্য

মতামত